ঢাকা, সোমবার, ১০ আশ্বিন ১৪২৯, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ২৮ সফর ১৪৪৪

আওয়ামী লীগ

ক্যাম্পাসে নিয়ে ৬ বাস ভাঙচুর করেছে জাবি ছাত্রলীগ

জাবি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫২৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১১, ২০১৭
ক্যাম্পাসে নিয়ে ৬ বাস ভাঙচুর করেছে জাবি ছাত্রলীগ ক্যাম্পাসে নিয়ে ৬ বাস ভাঙচুর করেছে জাবি ছাত্রলীগ

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়: শিক্ষার্থীর সঙ্গে দুর্ব্যবহারের জেরে ওয়েলকাম ট্রান্সপোর্ট (প্রা.) লিমিটেডের ৬টি বাস ক্যাম্পাসের ভেতরে নিয়ে ভাঙচুর করেছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ। শনিবার (১১ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাসগুলোতে ভাঙচুর চালান নেতা-কর্মীরা।

জানা যায়, শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে ৪৫তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ইনামুজাম্মান শুভ (অর্থনীতি বিভাগ) ও জাহিদ আদনান (ফিনান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং বিভাগ) রাজধানীর শ্যামলী থেকে ওয়েলকাম পরিবহনের একটি বাসে উঠতে যান। শুভ বাসে উঠতে পারলেও আদনান উঠতে পারেননি।

বাস চলতে শুরু করলে শুভ বাস থামিয়ে আদনানকে ওঠাতে বলেন। এ নিয়ে বাসের সুপারভাইজার সঙ্গে শুভর কথা কাটাকাটি হয়। পরে শুভকে টেকনিক্যাল মোড়ে নামিয়ে দেওয়া হয়।

পরে শুভ ভাসানী হলের ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের ফোন দিলে তারা ডেইরি গেটে এসে ওয়েলকামের ৩টি বাস চাবিসহ আটকে রাখে। তবে যে বাসটির কর্মীদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা বাঁধে সেই বাসটিকে আটক করা সম্ভব হয় না। এ নিয়ে বাস কর্তৃপক্ষের সঙ্গে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের কথা হয়। কিন্তু রাতে আটককৃত বাসগুলো ডুপ্লিকেট চাবি দিয়ে বাস মালিকরা নিয়ে যান।

এতে ক্ষিপ্ত হয়ে শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ওয়েলকাম ট্রান্সপোর্ট লিমিটেডের ৮টি বাস আটক করেন শিক্ষার্থীরা। এর মধ্যে ৬টি বাসে (ব-১১-৯৬৬, ব-১২-০৬৩, ব-১১-৮২২৭, ব-১২-০০৪৭, ব-১১-৯১২০, ব-১১-৭৮৬৭) ভাঙচুর করে তারা। বাসে ভাঙচুর চালানো শিক্ষার্থীরা মওলানা ভাসানী হলের শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সেক্রেটারি গ্রুপের অনুসারী বলে জানা গেছে।
ক্যাম্পাসে নিয়ে ৬ বাস ভাঙচুর করেছে জাবি ছাত্রলীগএ ব্যাপারে ওয়েলকাম ট্রান্সপোর্ট লিমিটেডের ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, আমাদের প্রায় ৩ লাখ ২০ হাজার টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। যে বাসের বিরুদ্ধে অভিযোগ (ব-১১-৭৪৫৪ ) আনা হয়েছে ওই বাসটি নষ্ট হয়ে পড়ে রয়েছে।

এ বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি জুয়েল রানা বলেন, আমাদের তিনটি দাবি রয়েছে- টিকিট কাউন্টার করা, হাফ ভাড়া নেওয়া আর যে বাস ড্রাইভার ও সুপারভাইজার আমাদের ছাত্রের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেছেন তাদের আমাদের কাছে সোপর্দ করতে হবে। বাস মালিক পক্ষ থেকে আশ্বাস পেলেই আটক বাস ছেড়ে দেওয়া হবে।

বাসে ভাঙচুর করার প্রসঙ্গে জানতে চাইলে জুয়েল রানা বলেন, মালিক পক্ষ থেকে ভালো রেসপন্স না পাওয়ায় শিক্ষার্থীরা ক্ষুব্ধ হয়ে বাস ভাঙচুর করেছেন।  

জাবি শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান চঞ্চল বলেন, কে বা কারা বাস ভাঙচুর করেছেন তা আমি জানি না।

ক্যাম্পাসের ভেতরে বাস এনে ভাঙচুরের বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর অধ্যাপক তপন কুমার সাহা বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতরে বাস আনার তো কোনো অনুমতি নেই। এসব বিষয় দেখে নিরাপত্তা শাখা। তারা এ বিষয়ে ভালো বলতে পারবে।

প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা সুদীপ্ত শাহিন ক্যাম্পাসের বাইরে রয়েছেন জানিয়ে নিরাপত্তা কর্মকর্তা জেফরুল হাসান সজল বলেন, শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসের ভেতরে বাস ঢুকালে আমাদের কী করার আছে?

বাংলাদেশ সময়: ২১০৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ১১, ২০১৭
এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa