bangla news

যেওনা সিঙ্গাপুর একদিনে ফতুর করে দেবে!

10914 |
আপডেট: ২০১৪-১০-২৮ ১:২৫:০০ এএম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

গত সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে আমি মালয়েশিয়াতে। ক্লাং থেকে ট্যাক্সিতে চড়ে কেএল সেন্ট্রাল যাচ্ছিলাম। চালক সিঙ্গাপুরিয়ান শুনে বলেছিলাম, আমি সিঙ্গাপুর যাবো বলে ঠিক করেছি। ট্যাক্সি চালক হুশিয়ার করে দিয়ে বলেছিলেন, এ কাজ করো না।

সিঙ্গাপুর থেকে: গত সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে আমি মালয়েশিয়াতে। ক্লাং থেকে ট্যাক্সিতে চড়ে কেএল সেন্ট্রাল যাচ্ছিলাম। চালক সিঙ্গাপুরিয়ান শুনে বলেছিলাম, আমি সিঙ্গাপুর যাবো বলে ঠিক করেছি।

ট্যাক্সি চালক হুশিয়ার করে দিয়ে বলেছিলেন, এ কাজ করো না। আমি পরিবার নিয়ে মালয়েশিয়াতে চলে এসেছি, কারণ সিঙ্গাপুরে জীবনযাত্রার খরচ মেটানো সম্ভব হচ্ছিল না। ঘুরতে গেলেও একদিনের বেশি থেকো না, ফতুর করে দেবে।

কথা শুনলাম না সেই ট্যাক্সি চালকের। আমি এসেছি সিঙ্গাপুর। আর হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছি, কেন পৃথিবীর সবচেয়ে ব্যয়বহুল শহর বলা হয় সিঙ্গাপুরকে।

গত মার্চ মাসের খবর, ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিট’র (ইআইইউ) তথ্য মতে, ১৩১টি দেশের মধ্যে পৃথিবীর সবচেয়ে ব্যয়বহুল দেশ হিসেবে খেতাব অর্জন করেছে সিঙ্গাপুর। এক শহরের এক দেশ এটা। শহরটির অত্যন্ত শক্তিশালী অর্থনৈতিক কাঠামো, দৈনন্দিন জীবনের প্রতিটি কাজেই তাদের ব্যয় করা অর্থের পরিমাণ তাদের এই তালিকার শীর্ষে এনে দিয়েছে।

এছাড়া সিঙ্গাপুর কাপড় কেনার জন্যেও সবচেয়ে ব্যয়বহুল জায়গা। ২০১৩ সালে এই অবস্থানে ছিল টোকিও। এখন সে স্থান দখল করেছে সিঙ্গাপুর, আর টোকিওর স্থান ৫ম।

মোট ৪০০ ধরনের জিনিসের দামের উপর লক্ষ্য রাখা হয় এই তালিকা তৈরির সময়। ১৬০টি দ্রব্য ও সার্ভিসের প্রায় ৪০০ ম‍ূল্যের ওপর ভিত্তি করে এই তালিকা প্রণয়ন করেছে ইআইইউ। খাদ্য, পানীয়, পোশাক, নিজস্ব জিনিসপত্র, বাড়ি ভাড়া, লেখা-পড়া, বিনোদনসহ বিভিন্ন ধরনের বিষয় থাকে এই খরচ হিসাবের তালিকাতে।

এবার সিঙ্গাপুর আসতে মানি এক্সচেঞ্জে গিয়ে দেখি সিঙ্গাপুরের ১ ডলারের জন্যে দিতে হচ্ছে ৬৩ টাকা। দুই মাস আগেও যা ছিল ৬০ টাকা।

সিঙ্গাপুরে কিছু দ্রব্যের মূল্য উদাহরণ হিসেবে দিলে বোঝা যাবে, কেন এটি পৃথিবীর সবচেয়ে ব্যয়বহুল শহর।

একদিন সকালে ডেস্কার রোডে একটি স্ট্রিট রেস্টুরেন্টে বসলাম নাস্তা করতে। দুটি আটার রুটি, সব্জি আর পানি। খাওয়া শেষে বিল ধরিয়ে দেওয়া হলো সাড়ে ৫ ডলারের (৩৪৭ টাকা)!

এতো রাস্তার দোকানের খবর। আরেকদিন পাকিস্তানি রেস্টুরেন্টে ঢুকলাম রাতের খাবারের জন্যে। দুই টুকরো মুরগির মাংস আর একটা নান রুটির দাম পড়লো ১০ ডলার (৬৩০ টাকা)।

এখানে এক গ্লাস তরমুজর জুস দিয়ে তৃষ্ণা মেটাতে চাইলেও দিতে হয়েছে ৭ ডলার।

ইউনিভার্সাল স্টুডিওতে বিকেলে একটা বার্গার খেতে গুনতে হয়েছে ১৫.৬০ ডলার (৯৮২.৮০ টাকা)।

এখানে একটা আধা লিটার মিনারেল ওয়াটার কিনতে হলে দাম পড়বে এক ডলার।

ধূমপায়ীদের জন্যে বিষাক্ত নগর সিঙ্গাপুর। এখানে ধূমপান নিয়ন্ত্রণ আইনও বেশ কড়া। এক শলাকা বা দুই শলাকা সিগারেট বিক্রি হয় না এখানে। তবে বাংলাদেশি কিছু দোকানে পাওয়া যায়। বেনসন অ্যান্ড হেজেসের এক প্যাকেট সিগারেট কিনতে হলে ধূমপায়ীকে খরচ করতে হবে ১৩.৪০ ডলার (৮৪৭ টাকা)।

শুধু তাই নয়, ধূমপান শেষে ফিল্টার রাস্তায় ফেললে তার জন্যে জরিমানা গুনতে হবে ৫০ ডলার (৩১৫০ টাকা)।

এ দেশকে বলা হয় জরিমানার শহর। আইনের কঠোর প্রয়োগের কারণে ফাঁকি দেওয়া যায় না সিসি ক্যামেরার নিয়ন্ত্রণে থাকা এ দেশকে। তাই রাস্তায় থুথু ফেললেও এখানে জরিমানা দিতে হয় ৩০ ডলার। আর সে ক্ষেত্রে দেশি-বিদেশি, পর্যটক, ব্যবসায়ী কেউই রেহাই পায় না এধরনের জরিমানা থেকে।

সিঙ্গাপুরে বাসা ভাড়াও আকাশ ছোঁয়া। এখানে ব্যক্তিগত সম্পত্তির চেয়ে সরকারি সম্পত্তি বেশি। জমি কেনার সুযোগ নেই ৭০৪ বর্গ কিলোমিটারের এই দেশে। বেশ কিছু শর্ত পূরণ করে ৯৯ বছরের জন্যে ফ্ল্যাট কেনা যায় সরকারের কাছ থেকে। যার সর্বনিম্ন মূল্যও বাংলাদেশি টাকায় ২ কোটির নিচে পড়ে না। আর দুই রুমের একটি বাসায় ভাড়া থাকতে চাইলে মাস শেষে দিতে হবে সর্বনিম্ন ১০০০ ডলার (৬৩০০০ টাকা)।

ডেস্কার রোডের বাজেট হোটেলগুলোতে ১ রুমের সর্বনিম্ন ভাড়া ৫০ ডলার প্রতি রাত। তবে রুমের সঙ্গেই বাথরুম সুবিধা চাইলে ১০০ ডলারের (৬৩০০ টাক) নিচে বাজেট করলে হোটেলও পাওয়া যাবে না। আর ফাইভস্টার হোটেলগুলোতে ৩০০ থেকে হাজার ডলার পর্যন্ত রয়েছে একদিনের রুম রেন্ট।

এখানে কর্মজীবীদের মধ্যে একটি কথা প্রচলিত রয়েছে, সিঙ্গাপুরের আয় সিঙ্গাপুরেই রেখে যেতে হয়। তাইতো প্রবাসীদের ব্যয় করতে হয় খুব বুঝে শুনে। সিঙ্গাপুরের সীমানায় মালয়েশিয়ার জোহরবারু অঞ্চলের নাগরিকদের জন্যে অবশ্য পোয়াবারো। তারা ভিসা ছাড়াই প্রবেশ করেন সিঙ্গাপুরে। এখানে আয় করেন এবং ব্যয় করেন মালয়েশিয়াতে। আর মালয়েশিয়ায় জীবনযাপনের ব্যয়, সেটা ক্ষেত্র বিশেষে ঢাকার চেয়েও কম।

আধুনিক জমকালো শহর হলেও সিঙ্গাপুরে কিন্তু ব্যক্তিগত গাড়ির সংখ্যা কম। তাই শহরে যানজটও নেই বললেই চলে। সীমানা ঘেঁষা মালয়েশিয়াতে বাংলাদেশি টাকায় ৭৫ হাজারে একটি গাড়ি কেনা গেলেও, সিঙ্গাপুরে ২০ লাখ টাকার নিচে টাটাও কেনা সম্ভব নয়।

** বাংলানিউজের নয়ন এখন সিঙ্গাপুরে

বাংলানিউ .বাংলানিউজ. জের নয়ন .বাংলানিউজ. এখন সিঙ্ .বাংলানিউজ. গাপুরে < .বাংলানিউজ. br />Mor .বাংলানিউজ. e: http: .বাংলানিউজ. //www.ba .বাংলানিউজ. nglanews .বাংলানিউজ. 24.com/b .বাংলানিউজ. eta/full .বাংলানিউজ. news/bn/ .বাংলানিউজ. 335567.h .বাংলানিউজ. tml
বাংলানিউ .বাংলানিউজ. জের নয়ন .বাংলানিউজ. এখন সিঙ্ .বাংলানিউজ. গাপুরে < .বাংলানিউজ. br />Mor .বাংলানিউজ. e: http: .বাংলানিউজ. //www.ba .বাংলানিউজ. nglanews .বাংলানিউজ. 24.com/b .বাংলানিউজ. eta/full .বাংলানিউজ. news/bn/ .বাংলানিউজ. 335567.h .বাংলানিউজ. tml


বাংলাদেশ সময়: ১১২৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৮, ২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

প্রবাসে বাংলাদেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
cache_14 2014-10-28 01:25:00