ঢাকা, সোমবার, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি

৯ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ রেখে যাবে সরকার: ভূমি প্রতিমন্ত্রী

সানি সরকার, জেলা প্রতিনিধি | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩৩৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০১১
৯ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ রেখে যাবে সরকার: ভূমি প্রতিমন্ত্রী

দিনাজপুর: ক্ষমতা ছাড়ার সময় মহাজোট সরকার দেশে ৯ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ রেখে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন ভূমি প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার।

বৃহস্পতিবার বিকেলে দিনাজপুরের বীরগঞ্জ ইব্রাহীম মেমোরিয়াল শিক্ষা নিকেতনের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।



তিনি আরও বলেন, যারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিল সেইসব খুনীদের বিগত চারদলীয় জোট সরকার মতায় বসিয়েছিল। তারেক জিয়া যেভাবে দেশ কাঁপিয়েছিল আওয়ামী লীগ তার কিছুই করে নাই।

শিক্ষা ক্ষেত্রে সরকার খুব আন্তরিক জানিয়ে তিনি বলেন, বর্তমান সরকার শিক্ষার উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। আমাদের দেশের অনেক ছাত্র ভালো ফলাফল করে দেশের বাইরে পড়াশুনা করছে।

এ সময় তিনি বাংলাদেশের ক্রিকেট দলেরও প্রশংসা করেন। তিনি বলেন, ‘আজকে আমাদের ক্রিকেটাররা সারা পৃথিবীতে আলোড়ন সৃষ্টি করছে। ’

ভূমি প্রতিমন্ত্রী এ সময় বিরোধী দল বিএনপি মহাসচিব খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের মন্তব্যের কড়া সমালোচনা করেন।

তিনি বলেন, ‘আজকে খোন্দকার দেলোয়ার বলেন, দেশে কিছু নাই। অথচ আজকে একজন কৃষক আদালতে হাজিরা দিয়েও ৪/৫ কেজি চাল কেনার সামর্থ্য রাখে। আগে একজন কৃষক সারা দিন শ্রম দিয়ে ১/২ কেজি চাল কিনত। তাহলে দেলোয়ার সাহেব কীভাবে বলেন যে দেশে কিছু নেই?’

তাই খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের যুক্তি সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলে মন্তব্য করেন তিনি।
 
এ সময় তিনি কৃষিক্ষেত্রে মহাজোট সরকারের সাফল্য তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার কৃষকের জন্য কাজ করে যাচ্ছে। কৃষকদের ফসলের ন্যায্য মূল্য প্রদান করছে। কৃষকের জন্য পর্যাপ্ত সার রয়েছে। সারের কোনও অভাব নেই। কিন্তু বিরোধী দল তা করতে পারেনি।

‘জনগণের ভোটে নির্বাচিত মহাজোট সরকার সবসময় জনগণের সাথে আছে এবং আগামীতেও থাকবে। ’ বলেন তিনি।


অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও সবশেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন ভূমিপ্রতিমন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান।

অনুষ্ঠানে বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি অ্যাডভোকেট মো. হামিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুর-১ আসনের জাতীয় সাংসদ মনোরঞ্জন শীল গোপাল, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আজিজুল ইমাম চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. জাকারিয়া জাকা, বীরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাসান মারুফ, শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ খয়রুল ইসলাম চৌধুরী, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক (ভারপ্রাপ্ত) আসাদুল ইসলাম, অভিভাবক মো. রফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ০১০৮ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa