ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৬ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৮ শাবান ১৪৪৫

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি

ভারতের কুদানকুলাম এনপিপির নির্মাণ সংক্রান্ত প্রটোকল স্বাক্ষর

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৩০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২৪
ভারতের কুদানকুলাম এনপিপির নির্মাণ সংক্রান্ত প্রটোকল স্বাক্ষর

রাশিয়া-ভারত আন্তঃসরকারি চুক্তির অধীনে ভারতের কুদানকুলাম পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের (এনপিপি) দ্বিতীয় ও তৃতীয় ধাপের নির্মাণ সংক্রান্ত একটি প্রটোকল স্বাক্ষরিত হয়েছে।

রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় পরমাণু শক্তি কর্পোরেশন রসাটমের মহাপরিচালক আলেক্সি লিখাচেভ এবং ভারতের পরমাণু শক্তি কমিশনের চেয়ারম্যান অজিত কুমার মহান্তি সম্প্রতি ভারতের কুদানকুলাম পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্প পরিদর্শন করেন।

পরিদর্শনকালে রাশিয়া-ভারত আন্তঃসরকারি চুক্তির অধীনে বিদ্যুৎ প্রকল্পটির দ্বিতীয় ও তৃতীয় নির্মাণ সংক্রান্ত প্রটোকলটি স্বাক্ষরিত হয়। রসাটমের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আলেক্সি লিখাচেভ বলেন, ভারত আমাদের কৌশলগত অংশীদার। পরমাণু শক্তি ক্ষেত্রে আমাদের সহযোগিতার সূত্রপাত হয় গত শতাব্দীর আশির দশকে, যখন দুই দেশের মধ্যে রুশ নকশায় ভারতীয় পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ সংক্রান্ত আন্তঃসরকারি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছিল। বিভিন্ন ক্ষেত্রে পরমাণু শক্তির ব্যবহার নিয়ে আমরা কাজ করে যাচ্ছি এবং আমরা আমাদের এই পারস্পরিক সহযোগিতার ভবিষ্যৎ সম্পর্কে আশাবাদী।

রাশিয়া-ভারত প্রযুক্তিগত ও এনার্জি সহযোগিতার ক্ষেত্রে কুদানকুলাম এনপিপি সর্ববৃহৎ এবং একটি ফ্ল্যাগশিপ প্রকল্প। প্রকল্পটি তিন ধাপে বাস্তবায়িত হচ্ছে। রুশ ভিভিইআর-১০০০ রিয়্যাক্টর ভিত্তিক মোট ৬টি ইউনিটের মোট উৎপাদন ক্ষমতা ধরা হয়েছে ৬ হাজার মেগাওয়াট।

প্রথম ধাপে নির্মিত ইউনিট-১ এবং ২ ইউনিট যথাক্রমে ২০১৩ ও ২০১৬ সালে ভারতের জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হয়েছে। এই ইউনিটগুলো তাদের নমিনাল ক্ষমতার চেয়ে বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদন করছে। দ্বিতীয় ধাপের তৃতীয় ও চতুর্থ ইউনিট এবং তৃতীয় ধাপের পঞ্চম ও ষষ্ঠ ইউনিট বর্তমানে নির্মাণাধীন রয়েছে। তৃতীয় ও চতুর্থ ইউনিটের জন্য প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতির সরবরাহ বর্তমানে শেষ পর্যায়ে।

পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ ছাড়াও রসাটম ভারতে স্থাপিত ভিভিইআর-১০০০ রিয়্যাক্টরগুলোর জন্য নির্ভরযোগ্য ও কার্যকরী জ্বালানি সরবরাহ করছে। রিয়্যাক্টরগুলোর পরিচালন দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ‘বর্ধিত জ্বালানি চক্র’ প্রবর্তন করা হয়েছে।

কুদানকুলামে ভিভিইআর রিয়্যাক্টর ভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে এনপিপি’র ইভোল্যুশুনারি নকশা ব্যবহৃত হয়েছে যা, সর্বাধিক নিরাপদ, নির্ভরযোগ্য এবং কার্যকরী। কুদানকুলাম এনপিপিতে সর্বপ্রথম শীতলীকরণের জন্য একটি ইউনিফাইড ব্যবস্থা ব্যবহৃত হয়েছে, যেখানে চারটি ইউনিটের কন্ডেনসারগুলোকে শীতল রাখতে একটি বড় আয়তনের কৃত্রিম জলাধার ভিত্তিক হাইড্রোলিক কাঠামো কাজ করবে। তৃতীয় এবং চতুর্থ ইউনিটে যন্ত্রপাতি স্থাপনের জন্য প্রথমবারের মতো ‘ওপেন টপ’ প্রযুক্তি ব্যবহৃত হয়েছে।

কুদানকুলাম এনপিপি’র জেনারেল কন্ট্রাকটর রসাটমের প্রকৌশল শাখা। প্রতিষ্ঠানটি বাংলাদেশের রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রেরও জেনারেল কন্ট্রাকটর।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৫০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২৪
এসকে/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।