ঢাকা, সোমবার, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ০১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

রাজনীতি

নৌকার প্রার্থীকে আ.লীগ নেতার হুমকি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯০৬ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৩, ২০২১
নৌকার প্রার্থীকে আ.লীগ নেতার হুমকি

বরিশাল: বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার সৈয়দকাঠী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রর্থীকে প্রাণনাশের হুমকির অভিযোগ উঠেছে আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী আনোয়ার হোসেন মৃধা উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনিবাহী কমিটির সদস্য সেলিম হোসেন বেপারীরসহ চারজনের বিরুদ্ধে থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছেন।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) রাতে করা সাধারণ ডায়েরির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বানারীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হেলাল উদ্দিন।

অভিযোগে আনোয়ার হোসেন মৃধা উল্লেখ করেন, নির্বাচনী প্রচারণা নিয়ে বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নান মৃধার সঙ্গে তার বিরোধ চলছে। গত ১৮ অক্টোবর দুপুর ২টার দিকে শেখ রাসেলের জন্মদিনের কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ শেষে বাড়ি ফিরছিলেন তিনি। আওয়ামী লীগের উপজেলা কার্যালয় থেকে বেড় হয়ে ফেরিঘাটে আসামাত্রই মান্নান মৃধার সমর্থক ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য সেলিম হোসেন বেপারী, সৈয়দকাঠী ইউনিয়নের ইন্দেরহাওলা গ্রামের আলম বেপারী, মো. মাছুম বেপারী এবং খলিল বেপারীসহ চারজন মিলে বিভিন্নভাবে তাকে ভয়ভীতি দেখান। এক পর্যায়ের সেলিম ও তার সঙ্গে থাকা অন্যরা নির্বাচনী প্রচারণা বন্ধ না করলে আনোয়ার হোসেন মৃধাকে খুন করবে বলেও হুমকি দেন।

আনোয়ার হোসেন মৃধা বলেন, মান্নান মৃধা গত নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ছিলেন। তার বিরুদ্ধে অর্থসহ বিভিন্ন সরকারি বরাদ্দ আত্মসাৎ ও দুর্নীতির অভিযোগ থাকায় তাকে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন দেওয়া হয়নি। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ নৌকা প্রতীকের প্রার্থী হিসেবে আমাকে মনোনয়ন দিয়েছে। এরপর থেকেই মান্নান মৃধাসহ প্রতিদ্বন্দ্বী অন্য প্রার্থীদের ক্যাডার বাহিনী আমাকে বিভিন্নভাবে হুমকি দিয়ে হয়রানি করছে। নির্বাচনী প্রচারণা শুরু আগেই নির্বাচনের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিঘ্নিত করার অপচেষ্টা চালাছে। এতে করে সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে শঙ্কায় রয়েছি। বিষয়টি উপজেলা ও জেলা আওয়ামী লীগের ঊর্ধ্বতন নেতাদের অবহিত করা হয়েছে।

এ বিষয়ে বানারীপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম সালেহ্ মঞ্জু মোল্লা বলেন, ঘটনাটি আমরা শুনেছি। দলের সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে দলীয় মনোনীত প্রার্থীর বিরোধিতা করার অর্থ হচ্ছে, আওয়ামী লীগ ও দলীয় নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরোধিতা করা। আনোয়ার মৃর্ধার অভিযোগ তদন্ত করে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলাভঙ্গের দায়ে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বানারীপাড়া থানার ওসি হেলাল উদ্দিন সাংবাদিকদের জানান, আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আনোয়ার হোসেন মৃর্ধার লিখিত অভিযোগটি সাধারণ ডায়েরি হিসেবে নেওয়া হয়েছে। অভিযোগ তদন্ত করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পাশাপাশি সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্ঠানে আমরা দৃঢপ্রতিজ্ঞ। নির্বাচনের পরিবেশ কেউ নষ্ট করার চেষ্টা করলে তাকে আইনে আওতায় আনা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০২ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৩, ২০২১
এমএস/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa