ঢাকা, বুধবার, ১১ কার্তিক ১৪২৮, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

রাজনীতি

আইনমন্ত্রীর বক্তব্য ‘ঔদ্ধত্যপূর্ণ’: বিএনপি

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭০২ ঘণ্টা, জুলাই ৪, ২০২১
আইনমন্ত্রীর বক্তব্য ‘ঔদ্ধত্যপূর্ণ’: বিএনপি

ঢাকা: খালেদা জিয়ার বিদেশে চিকিৎসা প্রসঙ্গে আইনমন্ত্রীর বক্তব্যকে ‘ঔদ্ধত্যপূর্ণ ও শালীনতা বিবর্জিত’ উল্লেখ করে তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ জানিয়েছে বিএনপি।

শনিবার (৩ জুলাই) বিকেলে দলটির সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী ফোরাম জাতীয় স্থায়ী কমিটির ভার্চ্যুয়াল বৈঠকে এই ক্ষোভ জানানো হয়।

রোববার (৪ জুলাই) দুপুরে ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে দলের এই সিদ্ধান্তের কথা জানান মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটি মনে করে শুধু রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে দেশনেত্রীকে সাজানো মিথ্যা মামলায় সাজা দেওয়া হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে সাংবিধানিক ও প্রচলিত আইনের ব্যতিক্রম ঘটিয়ে রাষ্ট্রযন্ত্রকে ব্যবহার করে সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে নাগরিক অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে। রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়ে তার প্রাপ্য জামিন পর্যন্ত তাকে দেওয়া হয়নি। অথচ একই ধরনের মামলায় অন্য প্রায় সব অভিযুক্তদের জামিন দেওয়া হয়েছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, স্থায়ী কমিটি মনে করে দেশনেত্রীর পরিবারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে তার বাসভবনে সাময়িকভাবে স্থানান্তরের যে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে তা প্রশাসনিক নির্দেশ। আইনের কোথাও একথা বলা নেই যে সরকার তাকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে যেতে দিতে পারবে না। যেখানে খুনের মামলায় ফাঁসির সাজাপ্রাপ্ত আসামি অথবা আজীবন মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি মুক্তি নিয়ে বিদেশে চলে যেতে পারে সেখানে এই দেশের স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রের জন্য যিনি আজীবন সংগ্রাম করেছেন তাকে মানবিক কারণে চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে উন্নত চিকিৎসার সুযোগ দেওয়া যাবে না, এটা কোনো মতেই গ্রহণযোগ্য হতে পারে না।

সভায় ভারতীয় ডেল্টা ভেরিয়্যান্টের সংক্রমণ এবং মৃত্যুর হার ভায়াবহভাবে বাড়ায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়। সভায় স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ও বিএনপি বারবার সতর্ক করার পরও সরকার সংক্রমণ প্রতিরোধের কার্যকরী ব্যবস্থা নিতে না পারার জন্য সরকারের উদাসীনতা, অযোগ্যতা ও দুর্নীতিকে দায়ী করা হয়।  

সভায় ক্রমাগত বর্ষণের ফলে এবং ভারতের উজানে সব বাঁধের গেট খুলে দেওয়ার কারণে প্রায় ১০টি জেলায় আকস্মিকভাবে বন্যা পরিস্থিতির উদ্ভব হওয়ায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়। অপরিকল্পিত ও দুর্বল নির্মাণকাজের কারণে সড়ক ও বাঁধগুলো ভেঙে যাওয়ায় জন-দুর্ভোগ বেড়েছে। ব্যাপক ফসল হানি হওয়ায় কৃষকের ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।  

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫৮ ঘণ্টা, জুলাই ০৪, ২০২১
এমএইচ/এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa