ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

রাজনীতি

রাজনীতির ইতিহাসে মওদুদ আহমদ চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪০ ঘণ্টা, এপ্রিল ২৫, ২০২১
রাজনীতির ইতিহাসে মওদুদ আহমদ চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন মির্জা ফখরুল ইসলাম

ঢাকা: রাজনীতির ইতিহাসে মওদুদ আহমদ চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রোববার (২৫ এপ্রিল) বিকেলে এক ভার্চ্যুয়াল স্মরণ সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

 

মির্জা ফখরুল বলেন, মওদুদ আহমদ আজীবন অর্থাৎ ছাত্র জীবন থেকে শুরু করে শেষ দিন পর্যন্ত সক্রিয়ভাবে রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তার দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে সবচেয়ে বড় জিনিসটা আমার কাছে মনে হয়েছে যে, জ্ঞানের আলোয় আলোকিত হয়ে বাংলাদেশে রাজনীতি করেছেন তিনি। আইনজীবী হিসেবে, রাজনীতিবিদ হিসেবে এবং সর্বোপরি একজন লেখক ও গবেষক হিসেবে ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ অবশ্যই চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন। তিনি জীবিত থাকবেন তার এলাকার মানুষের কাছে, বাংলাদেশের মানুষের কাছে, বিএনপির কাছে, আমাদের রাজনীতির ইতিহাসে, সংগ্রামে আন্দোলনের ইতিহাসে।

মওদুদ আহমদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে বিএনপির মহাসচিব বলেন,  সত্যিকার অর্থে বলতে কী অত্যন্ত পরিশালীত ভাষায় পরিমত বক্তব্য দেয়া ছিল তার প্রধান গুন। আমরা তার অতীত থেকে শুরু করে শেষ জীবন পর্যন্ত দেখেছি তার যে সময়ানুবর্তিতা, নিয়মানুবর্তিতা- এটা ছিল তার বড় রকমের একটা গুন। শেষ সময়টায় আমার তার খুব কাছাকাছি আসার সুযোগ হয়েছিল। আমি তার কাছে ব্যক্তিগতভাবে ঋণী বিভিন্ন পরামর্শের জন্য। তিনি আমার কাছে একজন অভিভাবক ছিলেন।

সিঙ্গাপুরে যাওয়ার আগে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকাকালে শেষ সাক্ষাতের স্মৃতিচারণ করে মির্জা ফখরুল বলেন, উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে যাওয়ার আগে যখন তিনি এভারকেয়ার হাসপাতালে ছিলেন সেই সময়ে আমি ও ডা. জাহিদ (এ জেড এম জাহিদ হোসেন) তাকে দেখতে গিয়েছিলাম। সেখানে তিনি তখন নাকের মধ্যে মাস্ক নিয়েই আমাকে বলেছিলেন, এবার স্ট্যাডিং কমিটির মিটিংয়ে আমি থাকতে পারবো না। ইনশাল্লাহ পরের শনিবারে থাকবো। ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ পরের মিটিংয়ে আর উপস্থিত হতে পারেননি, সিঙ্গাপুর থেকে তিনি আর ফিরে আসেননি। তিনি আর কোনো দিনই আমাদের সঙ্গে থাকবেন না। তিনি থাকবেন আমাদের হৃদয়ে, আমাদের অন্তরে…।

মওদুদ আহমদ স্মরণে বিএনপির উদ্যোগে এ ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান প্রয়াত এ নেতার বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবন তুলে ধরে তার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে বক্তব্য রাখেন।

গত ১৬ মার্চ সিঙ্গাপুরে মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান সাবেক উপ-রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রী-আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।

মির্জা ফখরুলের সভাপতিত্বে ও প্রচার সম্পাদক শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানির পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিএনপির খন্দকার মোশাররফ হোসেন, জমির উদ্দিন সরকার, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, বরকত উল্লাহ বুলু, মোহাম্মদ শাহজাহান, অ্য্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুবু হোসেন, অ্যাডভোকেট জয়নাল আবেদীন, অ্যাডভোকেট নিতাই রায় চৌধুরী, অ্যাডভোকেট এ জে মোহাম্মদ আলী, ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল ও প্রয়াত নেতা ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের সহধর্মিনী হাসনা মওদুদ বক্তব্য রাখেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ২৫, ২০২১
এমএইচ/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa