bangla news

রোগীকে চিকিৎসা না দেওয়ার অভিযোগ জাতি শুনতে চায় না: হানিফ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৪-০৩ ৫:৪৩:৩৭ এএম
ত্রাণ বিতরণ করছেন মাহবুব উল আলম হানিফ। ছবি- বাংলানিউজ

ত্রাণ বিতরণ করছেন মাহবুব উল আলম হানিফ। ছবি- বাংলানিউজ

কুষ্টিয়া: দেশব্যাপী চলমান করোনা পরিস্থিতি, উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্যে শনাক্ত না করেই কোনো রোগীকে চিকিৎসা না দেওয়ার অভিযোগ জাতি আর শুনতে চায় না বলে চিকিৎসকদের সতর্ক করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।

বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) দুপুরে কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসকের সভাকক্ষে আয়োজিত নিত্য প্রয়োজনীয় দ্র্রব্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণ ও আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক জরুরি সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।

চিকিৎসাকে একটি মহান পেশা অভিহিত করে মাহবুব-উল-আলম হানিফ বলেন, এখন মানবতা নিয়ে চিকিৎসকদের এগিয়ে আসতে হবে। কে করোনা রোগে আক্রান্ত, আর কে নয় সেটি শনাক্ত করার দায়িত্ব চিকিৎসকদের। যে কোনো রোগী গেলেই তাকে করোনা ধরে নিয়ে চিকিৎসা দেবেন না, রোগী দেখবেন না, এটা অত্যন্ত দুঃখজনক। শনাক্ত না করেই কোনো রোগীকে চিকিৎসা না দেওয়ার অভিযোগ জাতি আর শুনতে চায় না।

এসময় করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের জাতীয় কমিটি গঠনের প্রস্তাব প্রসঙ্গে হানিফ বলেন, জাতীয় কমিটি দিয়ে কী হবে, কমিটির এখানে কোনো কাজ নেই। করোনা মোকাবিলা করা সরকারের বিষয়। তবে এ দুঃসময়ে যে যার অবস্থান থেকে কাজ করতে পারেন। কেউ যদি মনে করেন, করোনা ভাইরাসের কারণে তার কিছু দায়বদ্ধতা আছে, তবে তিনি কিছু করতে পারেন। সব কিছুতেই রাজনীতি খোঁজার সময় এখন নয়।

জেলা প্রশাসক আসলাম হোসেন, পুলিশ সুপার এস এম তানভীর আরাফাত, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সদর উদ্দিন খান, সাধারণ সম্পাদক আজগর আলী, ভেড়ামারা পৌর মেয়র শামিমুল ইসলাম ছানাসহ প্রশাসনের কর্মকর্তারা এসময় উপস্থিত ছিলেন। 

সভা শেষে বিকেলে মাহবুব উল আলম হানিফ কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির আয়োজনে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ মোকাবেলা ও প্রতিরোধের অংশ হিসেবে অসহায়, দুঃস্থদের মধ্যে জরুরি খাদ্য ও স্যানিটেশন সামগ্রী বিতরণ করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪১ ঘণ্টা, ০২ এপ্রিল, ২০২০
জেডএইছজেড/এইচজে

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-04-03 05:43:37