bangla news

ভোটাধিকার কেড়ে নেওয়ার প্রকল্প ইভিএম: আমির খসরু

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-১১ ৪:০০:৩১ পিএম
সভায় বক্তব্য রাখছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী। ছবি: শাকিল আহমেদ

সভায় বক্তব্য রাখছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী। ছবি: শাকিল আহমেদ

ঢাকা: বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বলেছেন, ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোট বন্ধ করতে না পারলে চিরতরে সবাই ভোটাধিকার হারাবেন। তিনি বলেন, ইভিএম হচ্ছে দেশের মানুষের ভোট কেড়ে নেওয়ার স্থায়ী একটি প্রকল্প।

শনিবার (১১ জানুয়ারি) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয়তাবাদী কর্মজীবী দলের উদ্যোগে এক-এগারোর প্রেক্ষাপট আজকের বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেন, সামনে ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচন হবে ইভিএমের মাধ্যমে। মধ্যরাতের নির্বাচনের বিষয়টি কিন্তু বিশ্ববাসী ও দেশের মানুষের জানা আছে। সুতরাং এখন আর ব্যালট বক্স ভর্তি করে নির্বাচনে কারচুপি করার সুযোগ নেই।

তিনি বলেন, আগে আলোচনা হতো নির্বাচনে কে জিতবে। এখন আর সেটি হয় না। আলোচনা হয় এ সিটটি ওরা দেবে, না ওরা নেবে। ঢাকা দুই সিটির নির্বাচনে ওরা কি দু’টোই নেবে, নাকি একটি দিয়ে দেবে, এগুলোই এখন জনগণ আলোচনা করে। আর এটার জন্য ইভিএম হচ্ছে তাদের মোক্ষম একটি অস্ত্র।

তিনি আরও বলেন, ওয়ান-ইলেভেনের বেনিফিসিয়ারি হয়েছে আওয়ামী লীগ। আমার কাছে এ বিষয়টি ভালো লাগে। তারা আবার স্বীকার করে ওয়ান-ইলেভেনের সরকার তাদের আন্দোলনের ফসল। সুতরাং তাদের মধ্যে ১/১১ এর যে ভূত চেপেছে সেটি থেকে দেশকে রক্ষা করতে হলে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে আন্দোলন-সংগ্রাম করতে হবে। বর্তমানে যারা ক্ষমতায় আছে তারা ওয়ান-ইলেভেনের সরকারের সঙ্গে হাত মিলিয়ে ক্ষমতায় আছে।
 
আয়োজক সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সালাউদ্দিন খানের সভাপতিত্বে এবং সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আলতাফ হোসেন সরদারের সঞ্চালনায় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মোহাম্মাদ রহমাতুল্লাহ, সাবেক কমিশনার অধ্যাপিকা ফাতেমা সালাম, কৃষক দলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য লায়ন মিয়া মোহাম্মদ আনোয়ার প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫৫ জানুয়ারি ১১, ২০২০
এমএইচ/আরআইএস/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-01-11 16:00:31