ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৭ মে ২০২৪, ১৮ জিলকদ ১৪৪৫

রাজনীতি

কি ধরনের দল করি আমরা!

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১২৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১, ২০২০
কি ধরনের দল করি আমরা! চেয়ারম্যান মেজর (অবসরপ্রাপ্ত ) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ

ঢাকা: বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অবসরপ্রাপ্ত ) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বলেছেন, নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর বিএনপির ৩০০ প্রার্থীকেই দলের পক্ষ থেকে ডাকা হয়নি। কেন হেরে গেলাম কারণটাও জানতে চায়নি দল। বিএনপির কড়া সমালোচনা করে তিনি বিষ্ময় কন্ঠে বললেন, ‘কি ধরনের দল করি আমরা!’

মঙ্গলবার (৩১ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় জাতীয় প্রেসক্লাবে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দল ও মুক্তিযুদ্ধের প্রজন্ম আয়োজিত ‘বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি এবং স্বাধীনতার ৪৯ বছর প্রাপ্তি ও প্রত্যাশা’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি এ সব বলেন।

মেজর হাফিজ বলেন, ‘বিএনপির কর্মীরা অনেক নির্যাতিত।

বিএনপির মহিলা কর্মীদেরকে পর্যন্ত নির্যাতন করা হয়। আমি নিজে প্রার্থী ছিলাম গত নির্বাচনের, ঘর থেকে বের হতে পারেনি। নিজের ভোটটা পর্যন্ত দিতে পারিনি। দুই দিন অবরুদ্ধ ছিলাম। কই, নির্বাচনের পর তো আমাদের কেউ জিজ্ঞাসা করে নাই।

আলোচনা সভায় গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, জেএসডি বিএনপি’র তুলনায় অনেক ছোট দল। তারা যে কাউন্সিল মিটিংটা করেছে— ইমপ্রেস ইট, এটা আমার সোজা কথা। তারা যদি করতে পারে, বিএনপি কেন পারেনা?

তিনি বলেন, আজকে বিএনপি’র ১ লাখ লোক জামিনে আছে। তাদেরকে ডাক দেন, তারা দুই দিনের জন্য হাইকোর্টের সামনের প্রাঙ্গণে এসে বসে থাকুক।

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, আজকের দিনে আমাদের প্রত্যাশা হলো— যদি বেগম জিয়াকে মুক্ত করতে চাই, রাজবন্দিদের মুক্তি চাই, মিথ্যা মামলা ও ষড়যন্ত্র সবকিছুর অবসান চাই, দেশের গণতন্ত্র চাই, সংসদ বাতিল চাই, সরকারের পদত্যাগ চাই, নতুন নির্বাচন চাই তাহলে আন্দোলন এখন থেকেই ধারাবাহিকভাবে শুরু করতে হবে। এবং এই আন্দোলনকে সমগ্র জনতার অভ্যুত্থানের মধ্য দিয়ে আমাদের বিজয় ছিনিয়ে আনতে হবে। যদি কালকে না পারি, তাহলে পরশু পারব। পরশুদিন না পারলে, তিনদিন পরে পারব। তিনদিন পরে না, পারলে ৩০ দিন পরে পারব। কিন্তু আমাদের পারতেই হবে। কারণ, আমাদের অস্তিত্বের জন্যই এই লড়াই।

আলোচনা সভায় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইশতিয়াক আজিজ উলফাত সভাপতিত্বে দলের অন্য নেতারা উপস্থিত ছিলেন।  

বাংলাদেশ সময়: ০৬২৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩১, ২০১৯
পিএস/ইউবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।