ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২২ জিলহজ ১৪৪১

রাজনীতি

কমলনগরের ৮ ইউনিয়নে আ’লীগের সম্মেলন স্থগিত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২৫৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৭, ২০১৯
কমলনগরের ৮ ইউনিয়নে আ’লীগের সম্মেলন স্থগিত

লক্ষ্মীপুর: কাউন্সিলরদের তালিকায় অনিয়মের অভিযোগে লক্ষ্মীপুরের কমলনগর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে।

শনিবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুরে জেলা আওয়ামী লীগের নির্দেশে উপজেলা আওয়ামী লীগ এ সম্মেলন স্থগিত করে।  

ইউনিয়নগুলো হলো- সাহেবেরহাট, লরেন্স, মার্টিন, ফলকন, পাটোয়ারিরহাট, হাজিরহাট, চর কাদিরা ও তোরাবগঞ্জ।

এর আগে গত শুক্রবার (৬ ডিসেম্বর) কালকিনি ইউনিয়নের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

দলীয় বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, ইউনিয়নের কাউন্সিলরদের তালিকায় স্বজনপ্রীতি ও অনিয়মের একাধিক অভিযোগ উঠায় সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে। তবে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের শীর্ষ নেতারা বলছেন, তালিকা প্রস্তুত না হওয়ায় সম্মেলন স্থগিত করা হয়।

এদিকে, শুক্রবার সন্ধ্যায় সাহেবেরহাট ইউনিয়নের কাউন্সিলরদের তালিকায় অনিয়ম ও একজন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিলের বিষয় নিয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

অপরদিকে, ফলকন ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ও ফলকন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রার্থী হারুনুর রশিদ কাউন্সিলরদের তালিকায় অনিয়মের অভিযোগ এনে লিখিত আবেদন করেন। একই ইউনিয়নের যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ও ইউপি সদস্য রেদওয়ান হোসেন রিপন কাউন্সিলরদের তালিকায় রাজাকারের ছেলের নাম থাকায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি/সম্পাদকের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

পাটোয়ারিরহাট ইউনিয়নের সভাপতি প্রার্থী সারওয়ার হোসেন কাউন্সিলরদের তালিকা যথাযথভাবে হয়নি বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন।  

তোরাবগঞ্জ ইউপির চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা ফয়সল আহমেদ রতন বলেন, পরিক্ষিত ও ত্যাগী নেতাকর্মীদের বাদ দিয়ে পরিকল্পিতভাবে রাজাকারের সন্তান, বিএনপি-জামায়াত ও জেএসডি থেকে অনুপ্রবেশকারীদের নিয়ে কাউন্সিলরদের তালিকা তৈরি করা হয়। এতে কমলনগরে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। সম্মেলন স্থগিত হওয়ায় দলীয় নেতাকর্মীদের মধ্যে স্বস্তি ফিরেছে।  

এছাড়াও বিভিন্ন ইউনিয়নের কাউন্সিলরদের তালিকায় অনিয়ম ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ তোলেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।

কমলনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নুরুল আমিন রাজু বলেন, জেলা আওয়ামী লীগের নির্দেশে ৮টি ইউনিয়নের সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে।

লক্ষ্মীপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নুর উদ্দিন চৌধুরী নয়ন বলেন, বিভিন্ন ইউনিয়নের কাউন্সিলরদের তালিকা প্রস্তুত না হওয়ায় এক সপ্তাহের জন্য সম্মেলন স্থগিত করা হয়।

গত ২ ডিসেম্বর কমলনগর উপজেলায় দলীয় কার্যালয়ে আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। ওই সভায় উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করা হয়। নির্ধারিত সময়ে চর কালকিনি ইউনিয়নের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হলেও বাকি ৮টি  ইউনিয়নের সম্মেলন স্থগিত করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৫৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৭, ২০১৯
এসআর/আরবি/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa