ঢাকা, সোমবার, ৭ শ্রাবণ ১৪২৬, ২২ জুলাই ২০১৯
bangla news

বগুড়ায় নির্বাচনী প্রচারণায় বিএনপির উপর হামলার অভিযোগ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৬-০৪ ১০:০১:৫৯ পিএম
শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথা এলাকায় বিএনপি নেতাকর্মীরা

শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথা এলাকায় বিএনপি নেতাকর্মীরা

বগুড়া: বগুড়া-৬ (সদর) আসনের উপ-নির্বাচনে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণার প্রথমদিনেই বিএনপি নেতাকর্মীরা নৌকা মার্কার সমর্থকদের হামলার শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার (৪ জুন) দুপুরে শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথা এলাকায় বিএনপি নেতাকর্মীরা সাধারণ ধানের শীষ প্রতীকের পক্ষে প্রচার-প্রচারণায় গেলে এ হামলা হয় বলে অভিযোগ।
 
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, প্রতীক বরাদ্দের পর দুপুরে শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথায় আসেন বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা। এসময় তারা ধানের শীষের পক্ষে ভোট প্রার্থনা করে লিফলেট বিতরণ করতে থাকেন। এভাবে প্রচার-প্রচারণাকালে ১০-১৫ মিনিটের মাথায় ২০-২৫ জন নৌকা প্রতীকের সমর্থক লাঠি হাতে নিয়ে কোনো কিছু বুঝে ওঠার আগেই বিএনপির নেতাকর্মীদের ধাওয়া করে।
 
নৌকা সমর্থকদের আচমকা ধাওয়া খেয়ে বিএনপির ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা মুহূর্তে ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। এরই এক পর্যায়ে নৌকার সমর্থকরা জেলা ছাত্রদল সভাপতি আবু হাসানকে বেধড়ক পেটাতে থাকে। আত্মরক্ষার্থে ছাত্রদল নেতা আবু হাসান সাতমাথা পুলিশ বক্সের ভেতরে আশ্রয় নেন। 

কিন্তু সেখান থেকেও তাকে টেনে বের করে এনে আবারো মারধর করেন নৌকার সমর্থকরা। এসময় বেশ কয়েকজন গণমাধ্যমকর্মীও আহত হন।
 
জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আলী আজগর তালুকদার হেনা বাংলানিউজকে জানান, প্রতীক বরাদ্দের পর নির্বাচনী বিধি মেনেই তারা ধানের শীষের পক্ষে প্রচার-প্রচারণায় করছিলেন। কিন্তু তাদের শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমুখর প্রচারণায় নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর সমর্থকরা হামলা চালায়।
 
এতে ছাত্রদল সভাপতিসহ বেশ কয়েকজন বিএনপি নেতাকর্মী আহত হন। এমন পরিস্থিতি বজায় থাকলে আসন্ন উপ-নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হবে না বলেও মত দেন আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আলী আজগর তালুকদার হেনা।
 
আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী টি জামান নিকেতা বলেন, দলীয় কার্যক্রম শেষে আমরা সাতমাথা হয়ে ফিরছিলাম। এসময় তার সমর্থকদের ক্ষুদ্র একটি অংশের সঙ্গে বিএনপি নেতাদের বাকবিতণ্ডা হয়েছে বলে শুনেছি। তবে হামলা বা মারধরের খবর জানা নেই। এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে কিনা তা খতিয়ে দেখতে হবে।
 
তবে বিষয়টি নিয়ে পুলিশের পক্ষ কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।
 
এর আগে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বগুড়া-৬ (সদর) আসন থেকে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর নির্বাচিত হন। কিন্তু নির্ধারিত সময়ে তিনি শপথগ্রহণ না করায় তার আসন শুন ঘোষণা করে উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়।
 
ঘোষিত তফসিল অনুযায়ি আগামী ২৪ জুন বগুড়া-৬ (সদর) আসনের উপ-নির্বাচনে ইলেক্ট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) সকাল ৯ টা থেকে বিকেল ৫ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ করা হবে। এই আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ-বিএনপি-জাতীয় পার্টিসহ মোট ৭ জন প্রার্থী লড়বেন।
 
বাংলাদেশ সময়: ২১৫০ ঘণ্টা, জুন ০৪, ২০১৯
এমবিএইচ/এএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   উপ-নির্বাচন
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-06-04 22:01:59