[x]
[x]
ঢাকা, সোমবার, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১৯ নভেম্বর ২০১৮
bangla news

দর-কষাকষির জন্য বিরোধীদল সুলভ হুঙ্কার দিচ্ছে ঐক্যফ্রন্ট

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-১১-১০ ১১:২৩:০৯ পিএম
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদেরসহ দলীয় নেতারা, ছবি: ডিএইচ বাদল

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদেরসহ দলীয় নেতারা, ছবি: ডিএইচ বাদল

ঢাকা: আগামী একাদশ সংসদ নির্বাচনে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট, বি. চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন যুক্তফ্রন্ট, এরশাদের জাতীয় পার্টিসহ সবদল নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে এতে কোনো সংশয় নেই বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেছেন, আমি এখনও মনে করি, সবদল নির্বাচনে আসবে। এতে কোনো সংশয় নেই। এখন শেষমেষ আরও কিছু পাওয়া যায় কি-না? আরো কিছু ছাড় দেয় কি-না? সেজন্য বিরোধীদল সুলভ হুঙ্কার দিচ্ছে তারা । দর-কষাকষিরও তো একটা ব্যাপার আছে।

শনিবার (১০ নভেম্বর) রাতে রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের তফসিল পেছনোর দাবি প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, তফসিল ঘোষণার পর নির্বাচন সংশ্লিষ্ট সব সিদ্ধান্তের মালিক নির্বাচন কমিশনের। আমাদের কিছুই বলার নেই। যদি নির্বাচন কমিশন মনে করে ঐক্যফ্রন্টের দাবি ন্যায়সঙ্গত, সেটা তারা সিদ্ধান্ত নেবে। এখানে আওয়ামী লীগের বা সরকারের কোন করণীয় নেই। তারা তাদের দাবিটা নির্বাচন কমিশনকে জানাতে পারেন। নির্বাচন কমিশন তাদের দাবি মেনে নেবেন কি-না, সেটা নির্বাচন কমিশনের ব্যাপার।

‘তবে আমরা চাই যথা সময়ে নির্বাচন। আমরা নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত আছি। আর নির্বাচনের পথে অন্তরায় সৃষ্টিকারী কোনো সহিংসতা, নাশকতার উপাদান যুক্ত হলে সেটাও প্রতিরোধ করার জন্য জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আমাদের নেকাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে মাঠে থাকবো।’

দাবি না মানলে ঐক্যফ্রন্ট কঠোর কর্মসূচি দেবে এমন প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তফসিল ঘোষণার পর সহিংস কোনো কর্মসূচি নিলে, সেটারও ব্যবস্থা নেবে নির্বাচন কমিশন। সিডিউল ঘোষণার পর যদি তারা কোনো কর্মসূচি নেয়, সেটা নির্বাচনী আচারণ বিধির সঙ্গে মোটেই সামাঞ্জস্যপূর্ণ নয়। সেটা একেবারেই নির্বাচনী আচারণ বিধির সুস্পষ্ট লঙ্ঘণ। সে অবস্থায় নির্বাচন কমিশন কি ব্যবস্থা নেবে সেটাও তারাই সিদ্ধান্ত নেবে।

তিনি বলেন, আমরা নির্বাচনের জন্য যেমন আছি, তেমনি নির্বাচন ঠেকানোর কোনো অসুভ তৎপরতা যদি চোখে পড়ে সেটাও মোকাবেলা করার জন্য আমরা প্রস্তুত। আমি মনে করি ঐক্যফ্রন্ট, যুক্তফ্রন্ট, জাপা সবাই নির্বাচনে আসবে। এ ব্যাপারে কোনো সংশয় নেই। শেষমেষ আরও কিছু পাওয়া যায় কি-না, আরও কিছু ছাড় দেয় কি-না সেজন্য বিরোধীদল সুলভ হুঙ্কার তারা দিচ্ছে। তাছাড়া দর-কষাকষিরও তো একটা ব্যাপার আছে। কিন্তু আমি বলবো, পাওয়া যাবে কি-না সেটা ইসিকে জিজ্ঞেস করুন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশে শান্তিপূর্ণ উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচনী কর্মকাণ্ড  চলছে। এই অবস্থায় কেউ যেনো রাজনৈতিক হয়রানির শিকার না হন, কেউ যেনো রাজনৈতিক কারণে ধরপাকড়ে না পরেন, সেই বিষয়টি ভালোভাবে দেখার জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে সর্তকভাবে দেখার নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কোনোভাবেই যেনো রাজনৈতিক কারণে কেউ হয়রানির শিকার না হন বা কোনো নিরীহ মানুষ যেনো ধরপাকড়ের শিকার না হন।

শনিবার (১০ নভেম্বর) দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ নিয়ে মোহাম্মদপুর থানাধীন আদাবর এলাকায় আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ভেতর টেম্পু থেকে পড়ে দু’জন আরোহী নিহতের ঘটনাকে অনাকাঙ্ক্ষিত, অনভিপ্রেত বলে জানিয়ে তিনি বলেন, আজ আদাবরে একটি অনাকাঙ্ক্ষিত, অনভিপ্রেত ঘটনা ঘটে গেছে। সে ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা হয়েছে, তিনি আমাকে বলেছেন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে নির্দেশনা জানিয়ে দিতে যে দু’দিনের মধ্যে ঘটনার তদন্ত করে জানাতে। আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে বিষয়টি অবহিত করেছি, এ ঘটনায় তদন্ত বোর্ডের সিদ্ধান্তে যারাই দোষী হবে, তাদের বিরুদ্ধে সরকার কঠোর ব্যবস্থা নেবে।

সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগে যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম, ডা. দীপু মনি, সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, একেএম এনামুল হক শামীম, আহমদ হোসেন, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ২৩২০ ঘণ্টা, নভেম্বর ১০, ২০১৮
এসএম/টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   রাজনীতি আওয়ামী লীগ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache