ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ রবিউস সানি ১৪৪২

আওয়ামী লীগ

জেলা পরিষদ নির্বাচন

বগুড়ায় মনোনয়ন পেলেন ডা.মকবুল

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১২৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৬, ২০১৬
বগুড়ায় মনোনয়ন পেলেন ডা.মকবুল

আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে বগুড়ায় আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছেন মুক্তিযোদ্ধা ডা.মকবুল হোসেন। বর্তমান জেলা পরিষদের প্রশাসক প্রবীণ এই রাজনীতিবিদ।

বগুড়া: আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে বগুড়ায় আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছেন মুক্তিযোদ্ধা ডা.মকবুল হোসেন। বর্তমান জেলা পরিষদের প্রশাসক প্রবীণ এই রাজনীতিবিদ।

শুক্রবার (২৫ নভেম্বর) দিবাগত রাতে গণভবনে মনোনীতদের নাম ঘোষণা করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তার এই ঘোষণার মধ্য দিয়ে প্রার্থী মনোনয়নে সব জল্পনা-কল্পনার অবসান হলো এ জেলায়।

আওয়ামী লীগের বর্তমান ও সাবেক মিলে বেশ কয়েকজন নেতা এই পদে দলীয় মনোনয়ন পেতে তৎপর ছিলেন। এরমধ্যে শীর্ষে ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন। তৃণমূল থেকে শুরু করে দলের হাইকমাণ্ডের দরজায় কড়া নাড়েন তিনি।

তবে দলের সাধারণ সম্পাদকের ঘোষণায় ডা. মকবুল হোসেনের নাম চলে আসায় এ দফায় ভাগ্য বিড়ম্বনায় পড়ে গেলেন এই নেতা। দীর্ঘ সময় সভা, সমাবেশ ও সংবর্ধনার ব্যানারে এ পদে দলীয় মনোনয়ন পেতে মাঠে ব্যাপক সরব ছিলেন মমতাজ উদ্দিন।

শনিবার (২৬ নভেম্বর) দলীয় বিভিন্ন সূত্রে এসব তথ্য উঠে আসে।      
 
সূত্রগুলো জানায়, আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেতে যারা তৎপর ছিলেন তাদের মধ্যে অন্যতম জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন, জেলা পরিষদের বর্তমান প্রশাসক ডা. মকবুল হোসেন, দলের জেলা শাখার সাবেক সহ-সভাপতি রেজাউল করিম মন্টু। তবে মমতাজ উদ্দিনকে পেছনে ফেলে মনোনয়ন লাভ করলেন ডা. মকবুল হোসেন।

এ ব্যাপারে জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক মজিবর রহমান মজনু বাংলানিউজকে বলেন, দলের একাধিক নেতা মনোনয়ন চাইতেই পারেন। কিন্তু দলের মনোনয়ন তো একজনই পাবেন। তাই দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। দল মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে সবাইকে একযোগে কাজ করতে হবে বলেও যোগ করেন এই নেতা।

জেলা পরিষদের বর্তমান প্রশাসক দলের মনোনয়নপ্রাপ্ত প্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা ডা.মকবুল হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, শনিবার (২৬ নভেম্বর) সকালের দিকে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিনের সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে সাক্ষাৎ করেছি। তার কাছে সমর্থন চেয়েছি।

সন্ধ্যায় বিষয়টি নিয়ে জেলা কমিটির সভা রয়েছে। সভায় নেতারা যে সিদ্ধান্ত নেবেন সেটাই তার (মমতাজ উদ্দিন) সিদ্ধান্ত বলে আমাকে জানিয়েছেন তিনি। এখন দেখা যাক সভা থেকে কি সিদ্ধান্ত আসে।
 
আগামি ২৮ ডিসেম্বর দেশের ৬১টি জেলায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৭২১ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৬, ২০১৬
এমবিএইচ/জিপি/আরআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa