bangla news

‘খালেদা জিয়া অবসর নিলে জনগণ উপকৃত হবে’

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৬-০৪-০৮ ৫:৫৬:২৯ এএম
ড. হাছান মাহমুদ

ড. হাছান মাহমুদ

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া রাজনীতি থেকে অবসর নিলে দেশের জনগণ উপকৃত হবে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ এমপি।

ঢাকা: বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া রাজনীতি থেকে অবসর নিলে দেশের জনগণ উপকৃত হবে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ এমপি।

শুক্রবার (৮ এপ্রিল) রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউটে বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামিক পার্টির দ্বিতীয় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আয়োজিত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন তিনি।
 
তিনি বলেন, কয়েকদিন আগে বিএনপি নেত্রী আদালতে আত্মসমর্পণ করতে গিয়েছিলেন। সেদিন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা আদালতের কাছে জামিন আবেদন করেছিলেন। আদালত বিএনপি চেয়ারপারসনের বয়স, অসুস্থতা ইত্যাদি বিবেচনায় তার জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। তাই আমি মনে করি, বয়স ও অসুস্থতার কথা চিন্তা করে খালেদা জিয়ার উচিত রাজনীতি থেকে অবসর নেওয়া। এতে জনগণের পাশাপাশি তার দল বিএনপিও উপকৃত হবে।

সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

একদিন সবকিছুর বিচার হবে- বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন মন্তব্যের জবাবে হাছান মাহমুদ বলেন, আমরা আশা করেছিলাম, ভারমুক্ত হওয়ার পর ফখরুল সাহেবের কথাবার্তায় পরিবর্তন আসবে। কিন্তু তা হয়নি। রাজনীতি হলো একটি ব্রত যা মানুষের কল্যাণের স্বার্থে। কিন্তু বিএনপি দেশের মানুষকে জিম্মি করে ক্ষমতায় যেতে চেয়েছিলো। জামায়াতকে সঙ্গে নিয়ে তারা দেশের মানুষকে অবরুদ্ধ করে রেখেছিলো। পেট্রোলবোমা নিক্ষেপের মাধ্যমে তারা যেভাবে জনগণের ওপরে নৃশংসতা চালিয়েছিলো তা স্মরণকালের যে কোনো বর্বরতাকে হার মানায়। খালেদা জিয়াসহ যারা এসব নারকীয় হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন, তাদের বিচার এ দেশের মাটিতে অবশ্যই হবে।

সভায় উপস্থিত আলেম সমাজের প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, যারা ইসলামের নামে মানুষ হত্যা করছে, তাদের বিরুদ্ধে জনগণকে সচেতন করে তুলুন। জুমার খুতবায় প্রকৃত ইসলাম বিষয়ে বয়ান দিন। মানুষ হত্যা করে যারা পবিত্র ধর্ম ইসলামের গায়ে কালিমা লেপন করতে চাইছে, তারা প্রকৃতপক্ষে এজিদের অনুসারী। তাদের হাত থেকে আমাদের ধর্মকে রক্ষা করতে হবে। এক্ষেত্রে আপনাদের ভূমিকা সবচেয়ে জোরালো হওয়া উচিত।

বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামিক পার্টির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাওলানা মোহাম্মদ ইসমাইলের সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য রাখেন- খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলামসহ সংগঠনটির বিভিন্ন ইউনিটের নেতারা।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ৮, ২০১৬
কেআরএম

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2016-04-08 05:56:29