ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

রাজনীতি

মৌলবাদ রুখতে ধর্মভিত্তিক রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে হবে: ডেপুটি স্পিকার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৩৩১ ঘণ্টা, জুলাই ১৬, ২০১০
মৌলবাদ রুখতে ধর্মভিত্তিক রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে হবে: ডেপুটি স্পিকার

ঢাকা: সাম্প্রদায়িকতা ও মৌলবাদের কালো থাবা থেকে দেশ ও জাতিকে মুক্ত করতে সব ধরনের ধর্মভিত্তিক রাজনীতি, ব্যবসা-বাণিজ্য নিষিদ্ধ করার পরামর্শ দিয়েছেন জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার কর্নেল (অবঃ) এম শওকত আলী।

শুক্রবার মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘর মিলনায়তনে সাম্প্রদায়িকতা-জঙ্গিবাদবিরোধী মঞ্চ আয়োজিত ‘যুদ্ধাপরাধীদের বিচার ব্যর্থ করার অপচেষ্টার বিরুদ্ধে জাতীয় ঐক্যের অপরিহার্যতা’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি একথা জানান।



তিনি আরও বলেন, সরকার আদর্শগতভাবেই সাম্প্রদায়িকতা ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে রয়েছে। যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে মহাজোটকে আরও সম্প্রসারিত করতে হবে। যাদের রাজনীতি কুৎসিত তারাই ধর্মের মুখোশ পরে, এখন সময় এসেছে সেই মুখোশ উন্মোচনের।

সভায় সেক্টর কমান্ডার্স ফোরামের সাধারণ সম্পাদক লেফট্যানেন্ট জেনারেল (অবঃ) হারুন-অর-রশীদ বলেন, জামায়াতে ইসলামীর কর্মীরা সমাজের তৃণমূলে পৌঁছে গেছে। তারা মানুষকে ইসলামের নামে বিভ্রান্ত করছে। তাই জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে গ্রহণযোগ্য করতে অত্যন্ত সতর্কভাবে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার প্রক্রিয়া এগিয়ে নেওয়ার জন্য সরকারকে পরামর্শ দেন তিনি।

অধ্যাপক সৈয়দ আনোয়ার হোসেন বলেন, যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের মধ্য দিয়ে মুক্তিযুদ্ধের অসম্পন্ন কাজ সম্পন্ন হবে। রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে জামায়াতে ইসলামীর কৌশল পরিবর্তনের ইতিহাস রয়েছে উল্লেখ করে তিনিও সরকারকে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে কৌশলী হওয়ার পরামর্শ দেন।

সভায় তরিকত ফেডারেশন, গণফোরামসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সভাশেষে সংগঠনটি আগামী ২২ জুলাই মানববন্ধন কর্মসূচি দিয়েছে।    

বাংলাদেশের স্থানীয় সময়: ১৩১০ ঘণ্টা, জুলাই ১৬, ২০১০


বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa