ঢাকা, বুধবার, ২ শ্রাবণ ১৪৩১, ১৭ জুলাই ২০২৪, ১০ মহররম ১৪৪৬

রাজনীতি

মিয়ানমার দেশের সার্বভৌমত্বে আঘাত হানার অপচেষ্টা করছে: জিএম কাদের

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫৮ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২৪
মিয়ানমার দেশের সার্বভৌমত্বে আঘাত হানার অপচেষ্টা করছে: জিএম কাদের

নীলফামারী: সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, ‘মিয়ানমার সেন্টমার্টিনের কাছে যুদ্ধ জাহাজ নিয়ে দেশের সার্বভৌমত্বে আঘাত হানার চেষ্টা করছে। বিভিন্নভাবে তারা আমাদের ভূখণ্ডে আসতে চাচ্ছে।

’ 

শনিবার (১৫ জুন) বিকেলে রংপুর সার্কিট হাউসে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।  

এর আগে জাপা চেয়ারম্যান চার দিনের সফরে রংপুরে এসে পৌঁছালে দলীয় নেতা-কর্মীরা তাকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেয়।

জিএম কাদের বলেন, মিয়ানমার থেকে বিপুলসংখ্যক রোহিঙ্গাকে এ দেশে ঠেলে দেওয়া হয়েছে। সরকার মানবতা দেখিয়ে সেই বোঝা ঘাড়ে নিয়েছে। বর্তমানে তাদের বাধা দেওয়ার চেষ্টা করা হোক। মিয়ানমার সেন্টমার্টিন যদি দখলে নিয়ে ফেলে, আবার কোনো মহত্ত্বের কারণে তা ছেড়ে দেওয়া হবে কিনা আমরা জানি না। দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষার করার দায়িত্ব আমাদের। সংসদ চালু থাকলে এটি কেন হচ্ছে, আমি প্রশ্ন করতাম।

বাজেট নিয়ে জিএম কাদের বলেন, সরকার যে বাজেট করেছে তা দুর্বৃত্তায়ন সহায়ক বাজেট। বিভিন্ন দুর্বৃত্তায়নকে এ বাজেটে উৎসাহিত করা হয়েছে। দুষ্টের পালন ও শিষ্টের দমন হচ্ছে বিভিন্ন নীতিতে। সরকারের আশপাশের মানুষ ধনী থেকে অতি ধনী হচ্ছে, আর সাধারণ মানুষ কষ্ট ভোগ করছে। এবারের বাজেটের মাধ্যমে বৈষম্যের দেশ তৈরি করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, স্বাধীনতার পরে কোনো সময় অর্থনৈতিক সংকট হয়েছে বলে আমার জানা নেই। বর্তমানে যে সংকট তৈরি হয়েছে, তা করেছে সরকার। তারা উচ্চাভিলাষী মেগা প্রকল্প করে, প্রকল্পের মেয়াদ বাড়িয়ে ব্যয় বাড়িয়েছে। আমি বলব, অর্থের বিরাট অপচয় হয়েছে। তাই দেশে অর্থনৈতিক মন্দা দেখা দিয়েছে।

বিরোধীদলীয় নেতা বলেন, বর্তমানে কর ছাড়ের সুফল পাচ্ছে ব্যবসায়ীরা, অপরদিকে করের বোঝা বইতে হচ্ছে জনগণকে। সরকার সংকুচিত অর্থ সরবরাহ মুদ্রানীতি গ্রহণ করার কথা বলছে। কিন্তু দেশের বাজার নিয়ন্ত্রণ করে সিন্ডিকেট। তাই এই নীতি কোনো কাজে আসবে না।

গ্যাস প্রসঙ্গে জাপা চেয়ারম্যান বলেন, সরকার বিদ্যুৎ ও গ্যাস আমদানি করছে। অথচ দেশে গ্যাসের বিশাল মজুত রয়েছে। সেটি উত্তোলনের বিষয়ে সরকারের কোনো দৃষ্টি নেই। এতে করে উচ্চ মূল্যে জনগণকে বিদ্যুৎ-গ্যাস ব্যবহার করতে হচ্ছে। গ্যাস সংকট এবং উচ্চ মূল্য দিয়ে গ্যাস ব্যবহার করতে না পেরে অনেক ইন্ডাস্ট্রি বন্ধ হয়ে গেছে। দেশে বেকারত্ব বাড়ছে।

এ সময় জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান এসএম ইয়াসির আহমেদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক আলাউদ্দিন মিয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৬ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২৪
এসএএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।