ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১৮ মহররম ১৪৪৬

মুক্তমত

দরপতনের শেয়ারবাজারে যে কারণে বিনিয়োগ করা উচিত 

ফয়সাল আহমেদ, অতিথি লেখক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৩ ঘণ্টা, জুন ২৭, ২০২৪
দরপতনের শেয়ারবাজারে যে কারণে বিনিয়োগ করা উচিত 

শেয়ারবাজারে পতনের সময় শেয়ার ক্রয় করার কিছু সুবিধা রয়েছে, যা বিনিয়োগকারীদের জন্য লাভজনক হতে পারে। নিচের কারণগুলো বিবেচনা করে বিনিয়োগকারীরা বাজার পতনের সময় শেয়ার ক্রয় করতে পারেন।

তবে সবসময় সুপরিকল্পিতভাবে এবং বাজার পরিস্থিতি বিশ্লেষণ করে বিনিয়োগ করা উচিত।

পতনের বাজারে শেয়ার কেনার পক্ষে বেশ কিছু যুক্তি রয়েছে। নিচে কিছু গুরুত্বপূর্ণ কারণ উল্লেখ করা হলো:

কম দামে শেয়ার ক্রয়ের সুযোগ: 
শেয়ার বাজার পতনের সময় শেয়ারের দাম সাধারণত কম থাকে। এই সময় কম দামে শেয়ার ক্রয় করা সম্ভব, যা পরবর্তীতে শেয়ারের মূল্য বৃদ্ধি পেলে লাভের সম্ভবনা অনেক বেশি থাকে।

ডিভিডেন্ড আয়: 
অনেক কোম্পানি নিয়মিত ডিভিডেন্ড প্রদান করে। শেয়ারের দাম কম থাকলেও, ডিভিডেন্ড পাওয়ার সম্ভাবনা থেকে যায়, যা নিয়মিত আয়ের একটি ভালো উৎস হতে পারে। নিঃসন্দেহে এটি একটি ভালো বিনিয়োগ হিসেবে প্রমাণিত।

লং-টার্ম বিনিয়োগের সুযোগ: 
যারা দীর্ঘমেয়াদি বিনিয়োগের দিকে মনোযোগী, তাদের জন্য পতনের বাজার একটি ভালো সুযোগ। কম দামে শেয়ার কিনে দীর্ঘ সময় ধরে রাখলে ভবিষ্যতে মূল্য বৃদ্ধি পেলে বড় ধরনের লাভ করা সম্ভব। এভাবে অতীতে অনেক বিনিয়োগকারী বড় ধরনের লাভবান হয়েছেন বাজার থেকে।

চাহিদা ও যোগানের অসামঞ্জস্য: 
বাজার পতনের সময় বিক্রেতারা বেশিরভাগ সময় শেয়ার বিক্রি করতে চায়, ফলে যোগানের চেয়ে চাহিদা কম থাকে। এই সময় শেয়ার ক্রয় করে ভবিষ্যতে মুনাফা করার সুযোগ বেশি থাকে।

মানসিক চাপ কমানো: 
পতনের সময় কেনাকাটা করলে বাজারের অবস্থা পরিবর্তিত হলে তা নিয়ে চিন্তার পরিমাণ কম থাকে। কারণ বিনিয়োগকারীর কাছে কম দামে কেনা শেয়ারের মজুদ থাকে। যে কারনে মানসিক অস্থিরতা কম থাকবে আপনার এটা বলাই যায়।

পোর্টফোলিও বৈচিত্র্যতা: 
এই সময় কম দামে বিভিন্ন ধরনের শেয়ার কিনে পোর্টফোলিও বৈচিত্র্যতা আনা যায়, যা বাজারের বিভিন্ন পরিস্থিতিতে ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে। ঊর্ধ্বমুখী বাজারে যেটা সম্ভব নয় একমাত্র পতনের বাজারে আপনি এই সুবিধা গ্রহণ করতে পারবেন।

এই কারণগুলো বিবেচনা করে পতনের বাজারে শেয়ার কেনা একটি স্মার্ট বিনিয়োগের কৌশল হতে পারে। তবে, যেকোনো বিনিয়োগের আগে নিজস্ব গবেষণা করা এবং বিনিয়োগের ঝুঁকি মূল্যায়ন করা গুরুত্বপূর্ণ।

লেখক: গণমাধ্যম কর্মী

বাংলাদেশ সময়: ২১৪০ ঘণ্টা, জুন ২৭, ২০২৪
নিউজ ডেস্ক

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।