ঢাকা, বুধবার, ২ ভাদ্র ১৪২৯, ১৭ আগস্ট ২০২২, ১৮ মহররম ১৪৪৪

জাতীয়

জিতুকে পাবনা পাঠিয়ে কুষ্টিয়া পালান বাবা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯১১ ঘণ্টা, জুলাই ৫, ২০২২
জিতুকে পাবনা পাঠিয়ে কুষ্টিয়া পালান বাবা

ঢাকা : সাভারের শিক্ষক উৎপল কুমার সরকার হত্যাকাণ্ডের ঘটনার পর নানা তথ্য সামনে আসছে। নতুন যে তথ্য পাওয়া গেছে, তা হলো- আশরাফুল ইসলাম জিতু তার শিক্ষক উৎপলকে মারধর করেছে; এমন খবর পাওয়ার পর তার বাবা মো. উজ্জ্বল ভয় পেয়ে যান।

তাই ছেলেকে পাবনা পাঠিয়ে নিজে পালিয়ে যান কুষ্টিয়ায়।

আদালতে দেওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে এসব তথ্য জানান মো. উজ্জ্বল। মঙ্গলবার (৫ জুলাই) ঢাকার সিনিয়র জুডিশিয়াল কাজী আশরাফুজ্জামান ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় তার জবানবন্দি রেকর্ড করেন। ঢাকার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

গত ২৫ জুন শিক্ষক উৎপল কুমার সরকারকে স্ট্যাম্প দিয়ে নৃশংসভাবে আঘাত করা হলে একদিন পর তার মৃত্যু হয়। উজ্জ্বলের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী, বাবা-ছেলে পালিয়ে যাওয়ার পর গত ২৮ জুন রাত সাড়ে ১২টার দিকে কুষ্টিয়ার কুমারখালী থানা এলাকার নিজ বাসার ভাড়াটিয়ার ঘর থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। জিতুকে পাবনার আতাইকুলায় এক আত্মীয়ের বাড়িতে পাঠানো হয়। সেখান থেকে গাজীপুর আসলে ২৯ জুন তাকে আটক করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। পরে তাদের ৫ দিন করে রিমান্ডে পাঠান আদালতের বিচারক।

গত ২৯ জুন উজ্জ্বলের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। সেই রিমান্ড শেষে মঙ্গলবার (৫ জুলাই) তাকে আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপ পরিদর্শক (এসআই) এমদাদুল হক। এ সময় আসামি স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে সম্মত হওয়ায় তা রেকর্ড করার আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা। সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক উজ্জ্বলের জবানবন্দি রেকর্ড করেন। এরপর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

চিফ জুডিশিয়াল আদালতের অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর আনোয়ারুল কবীর বাবুল এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।  

২৬ জুন আশুলিয়া থানায় তার ভাই অসীম কুমার সরকার বাদী হয়ে হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের দশম শ্রেণির ছাত্র জিতুসহ অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১২ ঘণ্টা, জুলাই ৫, ২০২২
কেআই/এমজে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa