ঢাকা, শনিবার, ১৮ আষাঢ় ১৪২৯, ০২ জুলাই ২০২২, ০১ জিলহজ ১৪৪৩

জাতীয়

ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা, মামাতো ভাই গ্রেফতার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪৯ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২২
ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা, মামাতো ভাই গ্রেফতার

পিরোজপুর: পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় মামাতো ভাইয়ের ধর্ষণে ষষ্ঠ শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছে।  

এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে ধর্ষক হাবিব সিকদারের (৩১) নামে মঙ্গলবার (২৪ মে) রাতে মঠবাড়িয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করলে বুধবার (২৫ মে) সকালে থানা পুলিশ ওই ধর্ষককে গ্রেফতার করে।

সেই সঙ্গে ওই ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে পাঠায়।

ধর্ষক হাবিব শিকদার উপজেলার খেজুরবাড়িয়া গ্রামের মৃত রত্তন সিকদারের ছেলে ও বড় মাছুয়া ইউনিয়ন ভূমি অফিসের ঝাড়ুদার।

দায়ের হওয়া মামলা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, হাবিব ওই স্কুলছাত্রীর আপন মামাতো ভাই এবং প্রতিবেশী। সেই সুবাদে হাবিব প্রায়ই ওই স্কুলছাত্রীর ঘরে যাতায়াত করতো এবং বিভিন্ন সময় কুপ্রস্তাব দিতো। গত ০২ জানুয়ারি ওই ছাত্রীর বাবা-মা ঘরে না থাকার সুযোগে হাবিব ওই স্কুলছাত্রীকে পার্শ্ববর্তী নির্মাণাধীন একটি বিল্ডিংয়ে নিয়ে ধর্ষণ করে। এতে ওই স্কুলছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। সম্প্রতি ওই স্কুলছাত্রীর শারীরিক পরিবর্তন দেখা দিলে পরিবারের লোকজনের সন্দেহ হয়। এরপর জিজ্ঞাসাবাদে সে সব খুলে বলে। পরে ডাক্তারের কাছে নিয়ে গেলে পরীক্ষা করে ওই স্কুলছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা বলে জানায়।

মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহা. নুরুল ইসলাম বাদল জানান, ধর্ষণের অভিযোগে হাবিবকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে এবং ওই ছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর সিভিল সার্জন অফিসে পাঠানো হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪২ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২২
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa