ঢাকা, বুধবার, ১১ কার্তিক ১৪২৮, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

বিয়ের দাবিতে পুলিশ সদস্যের বাড়িতে প্রেমিকার অবস্থান

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৪০২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১
বিয়ের দাবিতে পুলিশ সদস্যের বাড়িতে প্রেমিকার অবস্থান

ঝিনাইদহ: ঝিনাইদহে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শারীরিক সম্পর্ক করার পর প্রতারণার অভিযোগে পুলিশের এক সদস্যের বাড়িতে অবস্থান নিয়েছেন কলেজপড়ুয়া এক তরুণী।

ওই পুলিশ সদস্যের নাম সম্রাট।

তিনি ঝিনাইদহের আলহেরা স্কুলপাড়ার বাবুল ড্রাইভারের ছেলে। সম্রাট কয়েক বছর আগে কুষ্টিয়ায় কর্মরত অবস্থায় ওই মেয়েটির সঙ্গে পরিচয় হয়। পরে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

সম্রাটের বিয়ের খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যার পর তার বাড়িতে অবস্থান নেন ওই তরুণী।

মেয়েটি জানান, প্রেমের সম্পর্ক হওয়ার পর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দফায় দফায় বিভিন্ন স্থানে নিয়ে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করেন সম্রাট। সম্প্রতি তাকে এড়িয়ে চলা শুরু করেন। বিয়ের জন্য চাপ দিলে সম্রাট নানা তালবাহানা শুরু করেন। উপায় না পেয়ে তার বিরুদ্ধে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ করেন মেয়েটি। পরে সম্রাটকে বাগেরহাটে বদলি করে দেওয়া হয়। সেখানে গিয়েও বিয়ের দাবি করে আসছিলেন তিনি। বৃহস্পতিবার বাগেরহাটে গিয়ে তিনি জানতে পারেন শুক্রবার সম্রাটের বিয়ে। এমন খবরে সন্ধ্যায় সম্রাটের বাড়ি ঝিনাইদহ শহরের আলহেরা স্কুলপাড়ায় অবস্থান নিয়েছেন তিনি।

ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মো. সোহেল রানা বাংলানিউজকে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এর আগেও মেয়েটি এসেছিলেন। কিন্তু পুলিশ সদস্য সম্রাটের সঙ্গে সম্পর্কের কোনো প্রমাণ দিতে পারেননি তিনি। তবে মেয়েটি যদি থানায় অভিযোগ করেন তাহলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবো।

বাংলাদেশ সময়: ০৮০২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১
এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa