ঢাকা, শনিবার, ৭ কার্তিক ১৪২৮, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

ছিনতাইকারীদের ধরতে গিয়ে প্রাণ হারালেন দিনমজুর

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৫৪ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২১
ছিনতাইকারীদের ধরতে গিয়ে প্রাণ হারালেন দিনমজুর

ঢাকা: বুড়িগঙ্গা নদীতে ছিনতাইকারীদের ধরতে গিয়ে ছুরিকাঘাতে আহত আলমগীর হোসেন (৪০) চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে মারা গেছেন।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) দুপুরে তার মৃত্যু হয়।

তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তার বোনের স্বামী বাবুল শেখ।

তিনি বাংলানিউজকে জানান, ভোরে ছিনতাইকারীদের ধরতে গিয়ে তাদের এলোপাথাড়ি ছুরিকাঘাতে আহত হন আলমগীর। পরে তাকে মিটফোর্ড হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে ঢাকা মেডিক্যাল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।  

হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের পরিদর্শক মো. বাচ্চু মিয়া জানান, মরদেহ মর্গে রাখা হয়েছে।

এদিকে কেরানিগঞ্জ মডেল থানার তত্ত্বাবধানে বরিশুর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ পরিদর্শক (এসআই) এসএম আব্দুস সোবহান জানান, মিটফোর্ড হাসপাতালের পাশে বালুরঘাট এলাকায় ছিনতাইকারীরা প্রথমে কয়েকজনের টাকা পয়সাও কাগজপত্র ছিনতাইকালে তাদের চিৎকারে, শ্রমিক আলমগীরসহ কয়েকজন এগিয়ে আসে। এতে ছিনতাইকারীরা নৌকা নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় আলমগীরসহ কয়েকজন অপর একটি নৌকা নিয়ে ছিনতাইকারীদের ধাওয়া করে। পরে ছিনতাইকারীরা তাকে ধরতে আসা আলমগীরসহ অপর একজনকে ছুরিকাঘাত করে। পরে আলমগীর হাসপাতালে মারা যায়।

তিনি আরো জানান, বিস্তারিত তদন্ত করা হচ্ছে ও হাসপাতালে পুলিশ আছে।

এর আগে বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে রাজধানীর পুরান ঢাকার মিটফোর্ড বালুরঘাট এলাকায় ছুরিকাঘাতের দিনমজুর আলমগীর ও আনোয়ার হোসেন (৩৮) আহত হয়।

স্বজনরা জানায়, আলমগীরের বাড়ি শরীয়তপুরের পালং উপজেলার ছোট বিনদপুর গ্রামে। তার বাবার নাম আবুল হাসেম বেপারী। ৩ ছেলে ও ১ মেয়ের জনক তিনি। তার পরিবার গ্রামে থাকলেও তিনি জিনজিরাতে থাকে। আলমগীরও জিনজিরাতে থাকতেন। তবে তার সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যায়নি।

তাদেরকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া মো. হানিফ ও মাহবুল খান জানান, দিনমজুর হিসেবে মিটফোর্ড হাসপাতার সংলগ্ন বালুরঘাটে ট্রাক থেকে ভাঙারি মালামাল নামানোর কাজ করেন তারা। ভোরে যখন ট্রাক থেকে মালপত্র নামানোর কাজ করছিলো তখন এক ব্যক্তি দৌড়ে তাদের কাছে এসে জানায় ছিনতাইকারীরা তার বিদেশ যাওয়ার কাগজপত্র, মোবাইল ও টাকা পয়সা সব ছিনিয়ে নিয়ে গেছে। আলমগীর ও আনোয়ার দৌড়ে ছিনতাইকারীদের পিছু নিলে ছিনতাইকারীরা তাদের দুই জনকে এলোপাথারি ছুরিকাঘাত করে।

সহকর্মীরা আরো জানান, ছুরিকাঘাত করার পর ছিনতাইকারীরা দুটি নৌকা নিয়ে বুড়িগঙ্গা নদীর ওপার চলে যায়। তখন আহতাবস্থায় তাদের দুই জনকে উদ্ধার করে মিটফোর্ড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে সেখানে আলমগীরের অবস্থার অবনতি দেখে দ্রুত ঢামেক হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন চিকিৎসকরা। দুপুরে তার মৃত্যু হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২১
এজেডএস/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa