ঢাকা, শুক্রবার, ৯ আশ্বিন ১৪২৮, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৫ সফর ১৪৪৩

জাতীয়

প্রেমিকের হাত থেকে সম্ভ্রম বাঁচাতে নদীতে ঝাঁপ!

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯০৯ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২১
প্রেমিকের হাত থেকে সম্ভ্রম বাঁচাতে নদীতে ঝাঁপ!

রাজবাড়ী: রাজবাড়ীতে প্রেমিকের হাত থেকে সম্ভ্রম বাঁচাতে উত্তাল পদ্মায় ঝাঁপ দিয়ে নিজেকে রক্ষা করেছেন এক স্কুলছাত্রী।  

গত রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) রাজবাড়ী সদর উপজেলার মিজানপুর ইউনিয়নের গোদারবাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

 

এ ঘটনায় সোমবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সকালে ওই ছাত্রী বাদী হয়ে প্রেমিক মো. ইব্রাহিম খলিলের (১৭) বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেন।

পরে অভিযুক্ত প্রেমিক মো. ইব্রাহিম খলিলকে (১৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ইব্রাহিম খলিল রাজবাড়ী জেলা শহরের শ্রীপুর নোয়াখালী পাড়ার মৃত আবুল হোসেনের ছেলে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহাদাত হোসেন।

ভুক্তভোগী ওই ছাত্রী জানায়, সে রাজবাড়ী জেলা শহরের একটি বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী। করোনায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় ফেসবুকে তার সঙ্গে ইব্রাহিম খলিলের পরিচয় হয়। এরপর মোবাইল ফোনের মাধ্যমেই তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। গত ১২ সেপ্টেম্বর দুপুর ১টার দিকে তার বিদ্যালয়ের সামনে আসে ইব্রাহিম। এরপর তারা জেলা শহরের মিজানপুর ইউনিয়নের গোদার বাজার-সংলগ্ন পদ্মা নদীর তীরে ঘুরতে যায়।

এ সময় পদ্মা নদীর তীরে থাকা ইটভাটার পাশে নির্জন স্থানে তাকে নিয়ে যান ইব্রাহিম। সেখানে নিয়ে তাকে কু-প্রস্তাব দেন এবং তার শ্লীলতাহানির চেষ্টা করেন। নিষেধ করার পরও ইব্রাহিম শোনেনি। একপর্যায়ে ইব্রাহিমের হাত থেকে বাঁচতে দৌড়ে পদ্মা নদীতে ঝাঁপ দেন ওই ছাত্রী।

স্থানীয়রা বিষয়টি দেখে তাকে উদ্ধার করে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসেন। দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা গ্রহণের পরামর্শ দেন।

রাজবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহাদাত হোসেন জানান, ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর বাবা নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেন। পরে অভিযুক্ত তরুণকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৯০২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২১
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa