ঢাকা, সোমবার, ৯ কার্তিক ১৪২৮, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

জয়িতা ফুড কোর্ট রাজধানীবাসীর জন্য সুস্বাদু খাবার নিশ্চিত করবে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯২৩ ঘণ্টা, জুলাই ১৮, ২০২১
জয়িতা ফুড কোর্ট রাজধানীবাসীর জন্য সুস্বাদু খাবার নিশ্চিত করবে বক্তব্য রাখছেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা

ঢাকা: জয়িতা ফুড কোর্ট রাজধানীবাসীর জন্য গুণগত মানসম্পন্ন, সুস্বাদু ও পুষ্টিকর খাবার নিশ্চিত করবে বলে জানিয়েছেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা।  

তিনি বলেন, এর মাধ্যমে নারীর অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড আরও বেশি প্রসারিত হবে।

অন্য দশটা শিল্পের মতো রান্নাও একটি শিল্প। এর পেছনে রয়েছে নিরলস পরিশ্রম, মেধা, মমতা ও নান্দনিক উপস্থাপনা। মমতার এ শিল্পই হয়ে উঠতে পারে নারীর অর্থনৈতিক ক্ষমতায়নের একটি বড় হাতিয়ার।

রোববার (১৮ জুলাই) রাজধানীর ধানমন্ডিস্থ রাপা প্লাজায় জয়িতা ফাউন্ডেশনের ‘জয়িতা ফুড কোর্টের’ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।  

ইন্দিরা বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীদের আরও বেশি কর্মক্ষম করে গড়ে তোলা ও অর্থনীতিতে নারীর ভূমিকা নিশ্চিত করতে জয়িতা ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেন। জয়িতা ফাউন্ডেশন তৃণমূল পর্যায়ের নারী উদ্যোক্তাদের সক্ষমতা বাড়াতে কাজ করে যাচ্ছে। বহুমুখী ব্যবসা পরিচালনার জন্য নারী উদ্যোক্তাদের ঋণ সুবিধা ও প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। দেশব্যাপী গড়ে তোলা হচ্ছে নারীবান্ধব বিপণন ব্যবস্থা। তাদের উৎপাদিত ও প্রক্রিয়াজাত পণ্য এবং সেবা দেশের বাইরেও চাহিদা সৃষ্টি করেছে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদে ‘ক্যাফে জয়িতা’ নামে জয়িতার ব্র্যান্ডে একটি ক্যাফেটেরিয়া চালু রয়েছে যেটি সম্পূর্ণভাবে নারী উদ্যোক্তাদের দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে। বাংলাদেশ সচিবালয়েও জয়িতার ব্র্যান্ডে একটি ক্যাফেটেরিয়া স্থাপনের ব্যাপারেও উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।  
ইন্দিরা বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় দেশের নারী উদ্যোক্তাদের উন্নয়ন ও বিকাশ সাধনের জন্য ধানমন্ডিতে এক বিঘা জমির ওপর সর্বাধুনিক সুবিধাদি সম্বলিত ১২ তলা বিশিষ্ট ‘জয়িতা টাওয়ার’ নির্মাণের কাজ প্রক্রিয়াধীন। ভবনটির নির্মাণকাজ শেষ হলে তা নারী উদ্যোক্তাদের অর্থনৈতিক বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সায়েদুল ইসলাম বলেন, জয়িতা ফুড কোর্টের ডিজাইনে বাঙালির ঐতিহ্য ফুটে উঠেছে। এখানে সুস্বাদু খাবারের সঙ্গে বাঙালির গৌরবজ্জ্বল ঐতিহ্যকে অনুভব করা যাবে। জয়িতা নারী উদ্যোক্তাদের জন্য ই-জয়িতা প্ল্যাটফর্ম বাস্তবায়ন করা হবে।  

রাজধানীর ধানমন্ডির রাপা প্লাজার পঞ্চম তলায় জয়িতা ফুড কোর্টে রয়েছে ১৪টি খাবারের দোকান। এখানে রয়েছে দেশীয় ও আঞ্চলিক খাবার, পিঠা-পুলি, মণ্ডা-মিঠাই, মোঘলাই খাবার ও ড্রাই ফুডের সমাহার। সবগুলো দোকানই নারী উদ্যোক্তাদের দ্বারা পরিচালিত। এরইমধ্যে এসব তৈরি খাবারের সুনাম ছড়িয়ে পড়েছে। উদ্বোধন শেষে প্রতিমন্ত্রী ফুড কোর্ট ঘুরে দেখেন ও নারী উদ্যোক্তাদের সঙ্গে কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন- জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান চেমন আরা তৈয়ব, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক রাম চন্দ্র দাস, অতিরিক্ত সচিব ফরিদা পারভীন, অতিরিক্ত সচিব মীনা পারভীন, অতিরিক্ত সচিব ড. মহিউদ্দীন আহমেদসহ মন্ত্রণালয় ও জয়িতা ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তারা।

বাবাংলাদেশ সময়: ১৯২০ ঘণ্টা, জুলাই ১৮, ২০২১
জিসিজি/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa