ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

গাজীপুরে কিশোরীকে ধর্ষণের পর হত্যা, গ্রেফতার ২

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২০০ ঘণ্টা, জুলাই ১৪, ২০২১
গাজীপুরে কিশোরীকে ধর্ষণের পর হত্যা, গ্রেফতার ২

গাজীপুর: গাজীপুরে বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় এক কিশোরীকে গণধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে গাজীপুর পুলিশ ব্যুরো ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

গ্রেফতার হওয়া দুই যুবক হলেন- নীলফামারীর ডোমার থানার চিলাহাটি মাস্টার পাড়া এলাকার মৃত নবির উদ্দিনের ছেলে মো. সাঈদ ইসলাম (১৯) ও একই জেলা সদর থানার তিস্তা চৌরাটারি এলাকার মো. শফিকুল ইসলামের ছেলে মো. রনি মিয়া (২১)।

বুধবার (১৪ জুলাই) দুপুরে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পিবিআই গাজীপুরের পরিদর্শক মোহাম্মদ কাওছার উদ্দিন জানান, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কাশিমপুর বারেন্ডা পশ্চিমপাড়া এলাকার নুরুল ইসলামের বাসায় ভাড়া থাকতো রনির পরিবার। বনিদের বাসার একটি কক্ষে থাকতেন সুমাইয়া খাতুন। পাশের আরেকটি বাসায় ভাড়া থাকতেন রনির বন্ধু মিলন, হাসান ও সাঈদ। তারা তিনজন টাকার বিনিময় রনিদের বাসায় তিনবেলা খাওয়া-দাওয়া করতেন। তবে, সুমাইয়ার সঙ্গে মিলনের প্রেমের সর্ম্পক ছিল।

কিন্তু সুমাইয়াকে পছন্দ করতেন রনি ও সাঈদ। তারা বিভিন্ন সময় সুমাইয়াকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে সাড়া পাননি। গত ৩১ অক্টোবর সকাল ৯টার পর সাঈদ নাস্তা খেতে রনির বাসায় যায়। এ সময় রনি ও সাঈদ ওই কিশোরীর সঙ্গে দৈহিক মেলামেশা করার পরিকল্পনা করে। একপর্যায়ে সাঈদ ও রনি ভিকটিমের কক্ষে ঢুকে তার হাত-পা বেঁধে ফেলে ধর্ষণ করে এবং ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করে। এরপর ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার ভয়ে রনি ও সাঈদ শ্বাসরোধ করে ওই কিশোরীকে হত্যা করে। পরে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার জন্য তারা ওই কিশোরীর মরদেহ ফ্যানের সঙ্গে ঝুলিয়ে রাখে।

এ ঘটনায় কাশিমপুর থানায় অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হলে ময়নাতদন্তে ধর্ষণের পর হত্যার আলামত পাওয়া যায়। এরপর গত ৩ জুলাই থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। মামলাটি পিবিআই তদন্ত করে ওই দুই যুবককে গ্রেফতার করে। গ্রেফতার করার পর তাদের গাজীপুর আদালতে হাজির করা হলে তারা ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

বাংলাদেশ সময়: ২১৫৫ ঘণ্টা, জুলাই ১৪, ২০২১
আরএস/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa