ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

হোসেনপুরে আশ্রয়ণ প্রকল্পের নির্মিত বাড়ি-ঘরে হামলা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৪৮ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১
হোসেনপুরে আশ্রয়ণ প্রকল্পের নির্মিত বাড়ি-ঘরে হামলা হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত জানালা।

কিশোরগঞ্জ: কিশোরগঞ্জের হোসেনপুর উপজেলার আশ্রয়ণ প্রকল্পে  ভূমিহীন ও গৃহহীনদের মধ্যে বরাদ্দকৃত বাড়ি-ঘরে হামলার ঘটনা ঘটেছে।  

শুক্রবার (০৯ জুলাই) দিনগত রাতে উপজেলার জিনারী ইউনিয়নের চরজিনারী গ্রামে নির্মিত আশ্রয়ণ প্রকল্পে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার (০৯ জুলাই) দিনগত রাতে উপজেলার জিনারী ইউনিয়নের চরজিনারী গ্রামে নির্মিত আশ্রয়ণ প্রকল্পে হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা। এসময় তারা ধারালো অস্ত্র দিয়ে আশ্রয়ণ প্রকল্পের একটি ঘরের দরজা ও দুটি জানালা কুপিয়ে কেটে ফেলে। এর মধ্যে একটি জানালা সম্পূর্ণ কেটে ফেলে তারা। পরে ঘটনা টের পেয়ে আশপাশের লোকজন চলে আসায় তারা পালিয়ে যায়।  

খবর পেয়ে রাতেই পুলিশসহ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রাবেয়া পারভেজ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এদিকে আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজে নিয়োজিত রাজমিস্ত্রীর সর্দার আল-আমিন জানান, কয়েকদিন আগে কয়েকজন তার কাছে চাঁদা দাবি করেন। চাঁদা দিতে না পারায় তারা ঘরে হামলা চালিয়েছে।

এ প্রসঙ্গে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রাবেয়া পারভেজ জানান, ঘটনার খবর পেয়ে রাতেই পুলিশ বাহিনীসহ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। জেলা প্রশাসকের নির্দেশ অনুযায়ী মামলা প্রক্রিয়াধীন। চাঁদা ছাড়াও এ হামলার পেছনে অন্য কোনো উদ্দেশ্য আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা হবে।

ইউএনও আরো জানান, ঘরগুলোর নির্মাণ কাজ শেষ হলেও স্যানিটেশনের কিছু কাজ চলমান আছে এবং জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলের টিউবওয়েল কাজ চলমান আছে। টিউবওয়েলের কাজ শেষ হলেই উপকারভোগীরা সেখানে বসবাস করা শুরু করবেন। উপজেলা প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিদের সহায়তায় উপকারভোগীদের মালামাল স্থানান্তরে ব্যবস্থাও নেয়া হয়েছে।  

আশ্রয়ণ প্রকল্পের নিরাপত্তা বিষয়ে সতর্কতা অবলম্বন করা হয়েছে এবং গ্রাম পুলিশ এর মাধ্যমে সার্বক্ষনিক পাহারার ব্যবস্থা করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।  

এ ব্যাপারে হোসেনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান জানান, অভিযোগ পেলে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আশ্রয়ণ প্রকল্পের ২য় পর্যায়ের ১৯টি ঘরের মধ্যে চরজিনারীতে ১৭টি ঘর নির্মাণ করা হয়। তাছাড়া প্রথম পর্যায়ের ৮টি ঘরসহ মোট ২৫টি ঘর এখানে নির্মাণ করা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৪৭ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১ 
আরএ  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa