ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

‘সজীব গ্রুপকে হতাহতদের দায় নিতে হবে’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৭ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১
‘সজীব গ্রুপকে হতাহতদের দায় নিতে হবে’

ঢাকা: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সজীব গ্রুপের প্রতিষ্ঠান হাশেম ফুডস লিমিটেডের জুসের কারাখানায় অগ্নিকাণ্ডে হতাহতদের পুরো দায় সজীব গ্রুপকে নিতে হবে বলে দাবি করেছে সজীব গ্রুপ ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটি।

শনিবার (১০ জুলাই) সজীব গ্রুপ ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটির পক্ষ থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ দাবি করা হয়।

বাংলাদেশে কৃষি ও খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ শিল্পে নিয়োজিত শ্রমিক ইউনিয়নগুলির প্রতিনিধিদের দ্বারা গঠিত সজীব গ্রুপ ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটিতে প্রতিনিধিত্বকারী ইউনিয়ন ও ফেডারেশনগুলো হলো—ইউনিলিভার এমপ্লইজ ইউনিয়ন, ট্রান্সকম বেভারেজেস লিমিটেড শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়ন, কোকাকোলা এমপ্লইজ ইউনিয়ন, নেসলে এমপ্লইজ ইউনিয়ন, পারফেট্টিভ্যান মেলে বাংলাদেশ প্রা. লি. এমপ্লইজ ইউনিয়ন, জাতীয় কিষাণী শ্রমিক সমিতি, বাংলাদেশ কৃষি ফার্ম শ্রমিক ফেডারেশন এবং বাংলাদেশ শ্রমজীবী কেন্দ্র।

বিবৃতিতে সজীব গ্রুপের ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সজীব গ্রুপের হাশেম ফুডস লিমিটেডের কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে ৫২ জন শ্রমিকের প্রাণহানি, অর্ধশতাধিক শ্রমিক নিখোঁজ এবং শতাধিক শ্রমিকের আহত হওয়ার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও নিন্দা জানায়।

সজীব গ্রুপ ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটি মনে করে, সজীব গ্রুপের কারখানায় যথাযথ আইন, স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা বিধিবিধান না মানা ও উচ্চ দাহ্য পদার্থ ও প্লাস্টিক স্তূপকরে রাখার ফলে ওই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ভয়াবহ রূপ নিয়েছে এবং অগ্নিকাণ্ডের সময় কারখানার ছাদের গেইট বন্ধ ও চতুর্থতলা তালাবদ্ধ করে শ্রমিকদের আটকে রাখার মাধ্যমে অর্ধশতাধিক শ্রমিককে হত্যা করা হয়েছে।

সজীব গ্রুপ কর্তৃপক্ষ কারখানায় বিপজ্জনক এবং অনিরাপদ কর্মপরিবেশ বজায় রেখে শ্রমিকের স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তার মৌলিক অধিকার লঙ্ঘন করেছে। শ্রমিকের নিরাপদ কর্মপরিবেশ প্রদানে ব্যর্থ সজীব গ্রুপকে আগুনে পুড়িয়ে শ্রমিক হত্যা এবং আহত করার পুরো দায় নিতে হবে বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

সজীব গ্রুপের ওয়ার্কার্স জাস্টিস কমিটির পক্ষ থেকে হাশেম ফুডস লিমিটেড কারখানার পাশাপাশি সজীব গ্রুপের পরিচালিত সকল কারখানায় স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা অধিকার সহ শ্রমিকদের অধিকার লঙ্ঘনের বিষয় সুষ্ঠু তদন্ত করা এবং দায়ীদের বিরুদ্ধে শাস্তির ব্যবস্থা, অগ্নিকাণ্ডে আহত শ্রমিকদের উপযুক্ত চিকিৎসা প্রদানসহ ক্ষতিগ্রস্ত এবং নিহত শ্রমিকদের আইএলও কনভেনশন ১২১ অনুসারে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবি করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৫ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১
আরকেআর/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa