ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

 ‘তড়িঘড়ি’ করে অর্থ ব্যয়ের প্রবণতা পরিহারের নির্দেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০৬ ঘণ্টা, জুলাই ৮, ২০২১
 ‘তড়িঘড়ি’ করে অর্থ ব্যয়ের প্রবণতা পরিহারের নির্দেশ

ঢাকা: অর্থবছরের শেষ পর্যায়ে এসে তড়িঘড়ি করে অর্থ ব্যয় করার প্রবণতা পরিহার করতে দেশের সব উপজেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে সরকার।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ‘২০২১-২২ অর্থবছরের জন্য উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন উপখাতের বাজেট বরাদ্ধ বণ্টন ও সঠিকভাবে বাজেট ব্যবহারের লক্ষ্যে দিকনির্দেশনা’ সংক্রান্ত চিঠিতে এ নির্দেশ দেয়।

বুধবার (০৭ জুলাই) দেশের সব উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) এবং জেলা, উপজেলা একাউন্টস ও ফিনান্স অফিসারদের কাছে এ চিঠি পাঠানো হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, অতিরিক্ত ব্যয়ের ক্ষেত্রে ব্যয়োত্তর অনুমোদন প্রদান করা হবে না বিধায় বরাদ্দকৃত অর্থের অতিরিক্ত ব্যয় করা যাবে না। বরাদ্দপত্রের বিষয়ে জিজ্ঞাসা থাকলে কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ না করে অবশ্যই মন্ত্রণালয়কে অবহিত করতে হবে।

এতে আরও বলা হয়, বরাদ্দকৃত অর্থ সরকারের প্রচলিত আর্থিক ও প্রশাসনিক নিয়মাবলী প্রতিপালন সাপেক্ষে কৃচ্ছসাধনের মাধ্যমে ব্যয় করতে হবে। অর্থবছর শেষে ১৫ জুলাইয়ের মধ্যে ব্যয়ের বিবরণীসহ সমর্পণ প্রতিবেদন মন্ত্রণালয়ে পাঠাতে হবে।

চিঠিতে বিদ্যুৎ বিল নিয়মিত পরিশোধ করতে নির্দেশ দিয়ে বলা হয়, কোনো কারণে বিদ্যুৎ বিল বকেয়া হলে কী কারণে বকেয়া হয়েছে তার কারণ ব্যাখ্যাসহ অতিরিক্ত বরাদ্দের চাহিদাপত্র পাঠাতে হবে।

এতে আরও বলা হয়, বরাদ্দকৃত বাজেটের ভিত্তিতে অর্থবছরের শুরুতেই বাজেট বাস্তবায়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে এবং সে পরিকল্পনা অনুসরণ করে ব্যয় করতে হবে। অর্থবছরের শেষ পর্যায়ে তড়িঘড়ি করে অর্থ ব্যয় করার প্রবণতা পরিহার করতে হবে।

এছাড়া বেতন ভাতাদি খাতে বাজেট বরাদ্দ সীমার মধ্যে আছে কিনা, পর্যবেক্ষণ রাখতে হবে। অতিরিক্ত বরাদ্দের প্রয়োজন -হলে যথাসময়ে অতিরিক্ত বরাদ্দের চাহিদা পত্র পাঠাতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫০২ ঘণ্টা, জুলাই ০৮, ২০২১
এমআইএইচ/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa