ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

করোনাকালে মৃতদের দাফনে মাস্তুল ফাউন্ডেশন

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮২৫ ঘণ্টা, জুলাই ৪, ২০২১
করোনাকালে মৃতদের দাফনে মাস্তুল ফাউন্ডেশন

ঢাকা: সারাদেশে সর্বাত্মক ‘লকডাউনের’ মধ্যেও করোনায় মৃতদেহ দাফন বা সৎকারে সক্রিয় রয়েছে মাস্তুল ফাউন্ডেশন। ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে মাস্তুল ফাউন্ডেশনের স্বেচ্ছাসেবী দিন-রাত কাজ করে যাচ্ছে।

ধানমন্ডি মাস্তুল ফাউন্ডেশনের প্রধান কার্যালয় থেকে এ কার্যক্রম পরিচালিত হয়ে আসছে।  

মাস্তুল ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা ও নির্বাহী পরিচালক কাজী রিয়াজ রহমান জানান, দেশের বর্তমান ‘লকডাউন’ পরিস্থিতেও আমাদের দাফন সেবা চলমান। প্রতিদিন আমাদের তিন থেকে চারটি মরদেহ দাফন করতে হচ্ছে। যে পরিমাণে আমাদের কাছে কল আসছে সে পরিমাণে আমরা সেবা দিতে পারছি না। অ্যাম্বুলেন্স ও অক্সিজেন সিলিন্ডারের স্বল্পতার কারণে অনেক অসহায়কে সেবা দিতে পারছি না।

এখন পর্যন্ত ৫১০ জন মরদেহের সৎকার করা হয়। এর মধ্যে করোনা আক্রান্ত মরদেহ ও অন্য রোগে আক্রান্ত মরদেহও রয়েছে। ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে মাস্তুল ফাউন্ডেশন এ দাফনসেবা ও অক্সিজেনসেবা দিয়ে আসছে।

মাস্তুল ফাউন্ডেশনের রয়েছে নিজস্ব দাফনসেবা টিম। যে টিমের সবাই প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত। মরদেহ গোসল করানো থেকে শুরু করে কাফনের কাপড় পরানো, জানাজার নামাজ আদায় করানো, দাফন করা প্রতিটি কাজ এ দাফন টিমের সদস্যরা করে থাকে। বর্তমানে অন্য জায়গায় মরদেহ গোসল করানো হয়ে থাকে। ভবিষ্যতে নিজেদের একটা স্থায়ী জায়গায় মরদেহ গোসলের ব্যবস্থা করা হবে। এর জন্য সমাজের দানবীর ও সামর্থবান ব্যক্তিদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে মাস্তুল ফাউন্ডেশন।  

দাফন কাজের স্বেচ্ছাসেবীরা এসেছে বিভিন্ন পেশা থেকে। কেউ ব্যাংকার, কেউ ব্যবসায়ী, কেউ চাকরিজীবী, কেউ সাংবাদিক, কেউ শিক্ষক, কেউ শিক্ষার্থী। নারীদের দাফনের জন্য রয়েছে মাস্তুল ফাউন্ডেশনের আলাদা টিম। এখানে নারী স্বেচ্ছাসেবীরাই সব করে থাকেন।

বর্তমানে মাস্তুল ফাউন্ডেশন শতাধিক করোনা মৃত ব্যক্তির মরদেহ দাফন করার পাশাপাশি বিনামূল্যে অক্সিজেন ও অ্যাম্বুলেন্সসেবা দিয়ে আসছে। দাফনসেবা, অ্যাম্বুলেন্সসেবা ও অক্সিজেনসেবা পেতে কল করুন 01730482279 নম্বরে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৩ ঘণ্টা, জুলাই ০৪, ২০২১
আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa