ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

কারণ ছাড়া বাইরে বের হলেই জরিমানা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৪৬ ঘণ্টা, জুলাই ১, ২০২১
কারণ ছাড়া বাইরে বের হলেই জরিমানা ছবি: শাকিল

ঢাকা: করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে শুরু হয়েছে বিধি-নিষেধ বা ‘কঠোর লকডাউন’। এ পরিস্থিতিতে অতি গুরুত্বপূর্ণ কারণ ছাড়া বাইরে বের হলেই গুনতে হচ্ছে জরিমানা।

বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) সকালে রাজধানীর শাহবাগ মোড়ে এমন চিত্রই দেখা গেছে। বিশেষ করে সকালে শাহবাগ মোড়ে পুলিশ, র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) ও সেনাবাহিনী চেকপোস্টের মাধ্যমে যৌথ অভিযান পরিচালনা করে।

সকাল ১০টা থেকে রাজধানীর শাহবাগ মোড়ে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসুর নেতৃত্বে একটি ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। এ সময় যারা বাইরে ছিলেন তাদের বাইরে বের হওয়ার কারণগুলো খতিয়ে দেখা হয়। যাদের কারণগুলো সঠিক ছিল, অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ছিল তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়। বাকিরা যারা কোনো গুরুত্বপূর্ণ কাজ ছাড়াই ঘর থেকে বাইরে বের হয়েছেন তাদের জরিমানা করা হয়।

এদিন রাজধানীর শাহবাগ এলাকা ঘুরে দেখা গেছে অন্যান্য সময়ের তুলনায় সড়কে যানবাহন খুবই সীমিত বা নেই বললেই চলে। শুধুমাত্র কিছু রিকশা চলতে দেখা গেছে। এছাড়া খাদ্য পরিবহন, অ্যাম্বুলেন্স ও নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য পরিবহনের গাড়িগুলো ছিল সড়কে।

এ প্রসঙ্গে র‌্যাবের ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু বাংলানিউজকে বলেন, জনগণ এবারের ‘লকডাউন’কে বেশ গুরুত্ব সহকারে মেনে নিয়েছে। তারা অত্যন্ত গুরুত্ব দিচ্ছে বিষয়টিকে এবং সেটি মেনেই তারা ঘরে থাকার চেষ্টা করছে। আমরাও সবাইকে সচেতন করার চেষ্টা করছি। কয়েকজনকে জরিমানা করা হয়েছে। তবে আমরা চাই সবাই ঘরে থাকুক।

তিনি বলেন, শুধুমাত্র কার্যক্রম পরিচালনা বা জরিমানা করা নয় বরং আইনশৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা সড়কে করোনা সচেতনতায়ও কাজ করছেন। তারা বিভিন্ন রিকশাচালক এবং অন্যান্য পথযাত্রীদের হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও মাস্ক বিতরণ করছেন।

দেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা থেকে সাত দিনের সরকারি বিধি-নিষেধ বা ‘কঠোর লকডাউন’ শুরু হয়েছে। এ সাত দিন সব অফিস, যানবাহন ও দোকানপাট বন্ধ রেখে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

সরকারি বিধি-নিষেধ এবং মানুষের স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে মাঠে টহলে থাকবে সেনাবাহিনী, পুলিশ, বিজিবি, র‌্যাব, কোস্টগার্ড ও আনসার সদস্যরা। অতি জরুরি প্রয়োজনে বিধি-নিষেধের সময় বাড়ির বাইরে যাওয়া যাবে না। পুলিশ জানিয়েছে, বিনা কারণে বাড়ির বাইরে গেলেই করা হবে গ্রেফতার।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৪২ ঘণ্টা, জুলাই ০১, ২০২১
এইচএমএস/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa