ঢাকা, রবিবার, ৯ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৫ জুলাই ২০২১, ১৪ জিলহজ ১৪৪২

জাতীয়

গাড়ি আটকে হেনস্তা: ‘রক কিং’ গ্রুপের ৫ সদস্য আটক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৩১ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২১
গাড়ি আটকে হেনস্তা: ‘রক কিং’ গ্রুপের ৫ সদস্য আটক

ঢাকা: রাজধানীর যাত্রাবাড়ী মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারে প্রাইভেটকারের আটকে চালকে হেনস্থার ঘটনায় কিশোর গ্যাং ‘রক কিং’ গ্রুপের ৫ সদস্যকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-৩)।

সোমবার (১৪ জুন) দিনগত রাতে রাজধানীর শনিরআখড়ার গোবিন্দপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।

আটকরা হলেন- ইমন আহম্মেদ শুভ (২০), সুমন মিয়া (১৮),আজাহারুল ইসলাম ওরফে দোলন (২১), অন্তর হোসেন মোল্লা (২২) ও নাজমুল হাসান ওরফে সৈকত (২০)।

র্যাব-৩ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বীণা রানী দাস জানান, গত ১৬ মে সন্ধ্যায় মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের উপর জয়কালী মন্দিরের কাছে একটি প্রাইভেটকারের গতিরোধ করে কতিপয় কিশোর গ্যাংয়ের সদস্যরা। এ সময় গাড়ির চালককে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে শারীরিকভাবে আক্রমণের জন্য উদ্ধত হয় এবং গাড়িতে আঘাত করে।

এ সময় ওই গাড়িতে একজন স্ত্রী-সন্তানদের সঙ্গে যাচ্ছিলেন। গাড়ি থামিয়ে হেনস্থার ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ পেলে জনমনে ব্যাপক অসন্তোষ সৃষ্টি হয়। এরই ধারাবাহিকতায় র‌্যাব জড়িতদের বিষয়ে গোয়েন্দা তথ্য সংগ্রহ শুরু করে।

গোয়েন্দা তথ্যর ভিত্তিতে জানা যায়, তারা কিশোর গ্যাং 'রক কিং' গ্রুপের সদস্য। তারা মাদক ক্রয়-বিক্রয় ও সেবন, এলাকায় চাঁদাবাজি, ছিনতাই, সাধারণ মানুষকে হয়রানি এবং বিভিন্ন রকম সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড পরিচালনা করে আসছে। সর্বশেষ জড়িতদের অবস্থান নিশ্চিত করে রাজধানীর শনিরআখড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে গ্রুপের ৫ সদস্যকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৩৭৪ পিস ইয়াবা, দু’টি সুইচ গিয়ার চাকু, দু’টি স্টিলের ব্যাটন, তিনটি মেটাল চেইন এবং পাঁচটি বক্সিং পাঞ্চার যন্ত্র উদ্ধার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

এ বিষয়ে র্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে রাজধানীসহ সারাদেশে যারা কিশোর অপরাধ বা কিশোর গ্যাংয়ের সঙ্গে জড়িত তাদের গ্রেফতারে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করছে র‌্যাব। কিছুদিন আগে কিছু কিশোর মোটরসাইকেল যোগে এসে একটি প্রাইভেটকারের গতিরোধ করে হেনস্থা করে।

ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ব্যাপক আলোড়নের সৃষ্টি হয়। এর ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ ঘটনার ছায়াতদন্ত শুরু করে। তদন্তে দেখা যায়, জড়িতরা ‘রক কিং’ নামের একটি কিশোর গ্যাংয়ের সদস্য। যারা শনিরআখড়া এলাকায় আধিপত্য বিস্তার করে আসছিলো। এর পরিপ্রেক্ষিতে র‌্যাব-৩ শনিরআখড়া এলাকা থেকে এ গ্রুপের ৫ জন সদস্যকে অস্ত্র ও মাদকসহ আটক করে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১৪ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২১
পিএম/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa