ঢাকা, শনিবার, ৫ আষাঢ় ১৪২৮, ১৯ জুন ২০২১, ০৮ জিলকদ ১৪৪২

জাতীয়

কোয়ারেন্টিনে তরুণীকে ধর্ষণ, সেই পুলিশ কর্মকর্তা বরখাস্ত

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২৩৫৮ ঘণ্টা, মে ১৭, ২০২১
কোয়ারেন্টিনে তরুণীকে ধর্ষণ, সেই পুলিশ কর্মকর্তা বরখাস্ত মোখলেছুর রহমান

খুলনা: খুলনায় ভারত থেকে ফেরার পর প্রাইমারি ট্রেনিং ইনস্টিটিউট (পিটিআই) সেন্টারে কোয়ারেন্টিনে থাকা এক তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার সেই এএসআই মো. মোখলেছুরকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) সূত্রে জানা গেছে, খুলনা মহানগরীর বাসিন্দা ওই তরুণী গত ৪ মে ভারত থেকে বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে আসেন।

এরপর তাকে খুলনা পিটিআইতে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। গত ১৩ এবং ১৫ মে রাতে এএসআই মোখলেছ দুই দফায় তাকে ধর্ষণ করেন। অভিযোগ পাওয়ার পর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা রেকর্ড করে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে সাময়িক বরখাস্ত এবং তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা দায়ের হয়েছে। দুটি মামলার তদন্তও শুরু হয়েছে।

সোমবার (১৭ মে) খুলনা সদর থানায় ওই তরুণী বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। অভিযুক্ত মোখলেছুর রহমান খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) কোর্ট অতিরিক্ত উপ-পরিদর্শক (এএসআই) হিসেবে কর্মরত। তিনি খুলনার পিটিআই কোয়ারেন্টিন সেন্টারে ১ মে থেকে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান,  ওই তরুণী গত ৪ মে ভারত থেকে এসে খুলনা পিটিআই সেন্টারে কোয়ারেন্টিনে ছিলেন। এক পর্যায়ে মোখলেছুর রহমান বিনা অনুমতিতে রুমে প্রবেশ করে ওই নারীর মুখ চেপে ধরে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নজরে আসলে সত্যতা যাচাইয়ের জন্য প্রাথমিক অনুসন্ধান করা হয়। অনুসন্ধানকালে ঘটনার প্রাথমিক সত্যতা পাওয়া যায়। পরে কেএমপির এক আদেশে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

তিনি জানান, ওই নারী বাদী হয়ে সদর থানায় মামলা করার পর  এএসআই মোখলেছুর রহমানকে গ্রেফতার পূর্বক আদালতে প্রেরণ করা হয়। মামলাটি বর্তমানে তদন্তাধীন।

বাংলাদেশ সময়: ২৩৫৮ ঘণ্টা, মে ১৭, ২০২১
এমআরএম/এইচএডি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa