ঢাকা, রবিবার, ৪ বৈশাখ ১৪২৮, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ০৫ রমজান ১৪৪২

জাতীয়

ভাষা ও স্বাধীনতার কথা বঙ্গবন্ধুকে ছাড়া কল্পনাই করা যায় না: প্রতিমন্ত্রী

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৩৪০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২১
ভাষা ও স্বাধীনতার কথা বঙ্গবন্ধুকে ছাড়া কল্পনাই করা যায় না: প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা: সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেছেন, ভাষা ও স্বাধীনতা আন্দোলনের কথা বঙ্গবন্ধুকে ছাড়া কল্পনাই করা যায় না। সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন ভাষা আন্দোলনের অগ্রজ সৈনিক।

১৯৪৭ সালে পাকিস্তান সৃষ্টির অব্যবহিত আগে বাংলাকে পাকিস্তানের প্রথম রাষ্ট্রভাষা করার দাবি উত্থাপন করেছিলেন তরুণ ছাত্রনেতা শেখ মুজিবুর রহমান। ১৯৪৭ সালের ৭ জুলাই কলকাতার ‘ইত্তেহাদ’ পত্রিকায় বঙ্গবন্ধুর এ দাবি প্রকাশিত হয়েছিল।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে রাজধানীর আইইবি সদর দফতরের সেমিনারকক্ষে আয়োজিত আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ‘চেতনায় ভাষা শহীদ’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সভার আয়োজন করে ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন, বাংলাদেশ (আইইবি) ঢাকা কেন্দ্র, ইআরসি ঢাকা এবং বঙ্গবন্ধু প্রকৌশলী পরিষদ (বিপিপি)।

প্রতিমন্ত্রী খালিদ বলেন, ১৯৪৮ সনের ৩ মার্চ গোপালগঞ্জে ৪০০ মানুষের এক জনসমাবেশে বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন, ‘ভাষা নিয়ে ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে’। ১৯৪৮ সালের ১১ মার্চ ভাষার দাবিতে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে ঢাকায় হরতাল পালিত হয়। তিনি পুলিশি নির্যাতনের শিকার হন এবং তাকে গ্রেফতার করা হয়। এটি ছিল তার জীবনের প্রথম রাজনৈতিক কারাবরণ। ১৯৪৮ সালের ১৫ মার্চ মুক্ত হয়েই তিনি ১৬ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে রাষ্ট্রভাষা সংগ্রাম পরিষদের সভায় সভাপতিত্ব করেন এবং সামনের সারিতে থেকে এ আন্দোলনকে এগিয়ে নিয়ে যান।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এবং আইইবির সাবেক প্রেসিডেন্ট প্রকৌশলী মো. আবদুস সবুর এবং ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ডুয়েট) উপাচার্য ও বঙ্গবন্ধু প্রকৌশলী পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক ড. ইঞ্জিনিয়ার মো. হাবিবুর রহমান।

সভায় আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আইইবির ভাইস প্রেসিডেন্ট (এইচআরডি) প্রকৌশলী মো. নূরুজ্জামান, ভাইস প্রেসিডেন্ট (প্রশাসন ও অর্থ) প্রকৌশলী খন্দকার মনজুর মোর্শেদ, ভাইস প্রেসিডেন্ট (একা. অ্যান্ড আন্ত.) প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন।  

সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন আইইবির সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার মো. শাহাদাৎ হোসেন শীবলু। সভায় সভাপতিত্ব করেন আইইবির প্রেসিডেন্ট প্রকৌশলী মো. নূরুল হুদা।

সভায় সঞ্চালনা করেন আইইবি ঢাকা কেন্দ্রের সম্পাদক কাজী খায়রুল বাশার।

বাংলাদেশ সময়: ০৩৪০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২১
এসএমএকে/আরআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa