ঢাকা, বুধবার, ৬ কার্তিক ১৪২৭, ২১ অক্টোবর ২০২০, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

জাতীয়

স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে  

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট   | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০২০২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২০
স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে
  ছবি: সংগৃহীত

সিলেট: সিলেট এমসি কলেজে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে।
 
শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সিলেটের টিলাগড় এলাকায় বেড়াতে গিয়েছিলেন ওই দম্পতি।

তাদের সিলেট মুরারী চাঁদ (এমসি) কলেজের ছাত্রাবাসে আটক রেখে পালাক্রমে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ উঠেছে।
 
খবর পেয়ে শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ছাত্রাবাস থেকে ওই দম্পতিকে উদ্ধার করে পুলিশ। পরে মধ্যরাতে ধর্ষণের শিকার হওয়া নারীকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়।
 
অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, টিলাগড় কেন্দ্রিক রনজিৎ গ্রুপের ছাত্রলীগ নামধারী নেতাকর্মীরা স্বামীকে আটক রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণ করেছেন।
 
সিলেট শাহ পরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাইয়ুম চৌধুরী বাংলানিউজকে বলেন, ছাত্রাবাসে আটকে রেখে নারীকে গণধর্ষণ করা হয়েছে-এমন খবর পেয়ে পুলিশ ওই ছাত্রাবাসে গিয়ে ওই দম্পতিকে উদ্ধার করে। উদ্ধার হওয়া নারী গণধর্ষণের অভিযোগ করেছেন। পরে তাকে ওসমানী হাসপাতালের ওসিসি সেন্টারে ভর্তি করা হয়। অভিযুক্তদের ধরতে পুলিশ অভিযানে নেমেছে।  
 
সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (মিডিয়া) জোর্তিময় সরকার বাংলানিউজকে বলেন, গণধর্ষণের শিকার নারীর স্বামীর বাড়ি সিলেটের দক্ষিণ সুরমা এলাকায়। ওই নারীর স্বামী অভিযোগ করেছেন, শুক্রবার বিকেলে স্ত্রীসহ টিলাগড় এলাকায় বেড়াতে গিয়েছিলেন তিনি। এসময় চার/পাঁচজন তরুণ তাদের জিম্মি করে ছাত্রাবাসের ভেতরে নিয়ে যান। পরে ছাত্রাবাসের ভেতরের একটি রাস্তায় তারা তার স্ত্রীকে ধর্ষণ করেন।
 
এমসি কলেজের হোস্টেল সুপার জামাল উদ্দিন জানান, কয়েকজন ছাত্রাবাসে এক দম্পতিকে আটক রেখেছিল বলে অভিযোগ পেয়েছি। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে।
  
বাংলাদেশ সময়: ০১৫৫ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২০
এনইউ/এসআই
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa