ঢাকা, সোমবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৭, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯ সফর ১৪৪২

জাতীয়

শিবপুরে শিশুকে শ্বাসরোধ ও গলাকেটে হত্যা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৩৮ ঘণ্টা, আগস্ট ৭, ২০২০
শিবপুরে শিশুকে শ্বাসরোধ ও গলাকেটে হত্যা ঘটনাস্থল ও ইনসেটে নিহত শিশু। ছবি: বাংলানিউজ

নরসিংদী: নরসিংদীর শিবপুরে ঝুমা আক্তার (১২) নামে এক শিশুকে শ্বাসরোধ ও গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।  

শুক্রবার (৭ আগস্ট) দুপুরে উপজেলার দুলালপুর ইউনিয়নের শিমুলিয়া গ্রামের কলাবাগান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

ঝুমা আক্তার উপজেলার দুলালপুর ইউনিয়নের শিমুলিয়া গ্রামের মুকুল মিয়ার মেয়ে। সে স্থানীয় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণীর শিক্ষার্থী।

নিহতের বাবা মুকুল মিয়া জানান, বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টায় ঝুমা বাড়ির পাশে মাদ্রাসার টিউবওয়েলে গোসল করতে গিয়ে নিখোঁজ হয়। পরে অনেক খোঁজাখুজি করেও কোথাও তাকে পাওয়া যায়নি।  

শুক্রবার সকালে বাড়ির পাশে ইব্রাহিমের কলাবাগানে তার মরদেহ দেখতে পেয়ে এলাকার লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে মরদেহ উদ্ধার করে।

তিনি কাঁদতে কাঁদতে সাংবাদিকদের বলেন, আমার মেয়েকে কে বা কারা হত্যা করেছে তা আমার জানা নেই। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।

শিবপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোল্লা আজিজুর রহমান বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে কলাবাগানে নিয়ে এক বা একাধিক ব্যক্তি ধর্ষণ চেষ্টায় ব্যর্থ  হয়ে তাকে শ্বাসরোধ ও গলা কেটে হত্যা করেছে। প্রকৃত ঘটনা উদঘাটন করার জন্য মরদেহের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করে ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর কারণ বলা যাবে। এ ঘটনায় নির্মানাধীণ মাদ্রাসার চার শ্রমিককে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আনা হয়েছে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত মামলা দায়ের করা হয়নি।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৩৩ ঘণ্টা, আগস্ট ০৭, ২০২০
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa