ঢাকা, সোমবার, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১৩ রবিউস সানি ১৪৪২

জাতীয়

ডোমারে ইজিবাইক থেকে ছিটকে নদীতে তিন শিশু, নিখোঁজ ২

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯১৭ ঘণ্টা, জুলাই ৩, ২০২০
ডোমারে ইজিবাইক থেকে ছিটকে নদীতে তিন শিশু, নিখোঁজ ২

নীলফামারী: নীলফামারীর ডোমারে ঝুঁকিপূর্ণ বেইলি ব্রিজ দিয়ে যাওয়ার সময় ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক থেকে ছিটকে পাঙ্গা নদীতে পড়ে গেছে তিনটি শিশু। এর মধ্যে একজনকে উদ্ধার করা গেলেও নিখোঁজ রয়েছে দুই শিশু। তাদের সন্ধানে অভিযান চালাচ্ছে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল।

শুক্রবার (৩ জুলাই) দুপুরে গোমনাতি-আমবাড়ী সড়কের পাঙ্গা নদী পারাপারের সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নদীতে পড়ে যাওয়া তিন শিশু হলো- লীপু (১২), মনোয়ার হোসেন (৬) ও নূর জান্নাত (৫)।

এদের মধ্যে লীপুকে  উদ্ধার করতে পারলেও নিখোঁজ রয়েছে অন্য দু’জন। তারা তিনজন সম্পর্কে খালাতো ভাই-বোন বলে জানা গেছে।

স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা জানান, ডোমারের জোড়াবাড়ী এলাকার ময়নুল নামে এক ব্যক্তির মেয়ের শ্বশুর মারা যান একই উপজেলার গোমনাতি ইউনিয়নের উত্তর গোমনাতি গ্রামে। সেখানে তার দাফনে অংশ নিয়ে দুপুরের দিকে ইজিবাইকে করে তিন নাতি-নাতনিসহ নিজ বাড়ি জোড়াবাড়ী গ্রামে ফিরছিলেন নানি রওশন আরা বেগম। পথে আমবাড়ী হাটের অদূরে পাঙ্গা নদী পারের সময় ঝুঁকিপূর্ণ বেইলি ব্রিজের পাটাতনের ফাঁকে চাকা পড়ে ইজিবাইকটি একদিকে হেলে যায়। এতে নানি রওশন আরা কিছু বুঝে ওঠার আগেই ইজিবাইকটি থেকে ছিটকে নদীতে পড়ে যায় তার তিন নাতি-নাতনি। এসময় সঙ্গে সঙ্গে নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়ে নাতি লীপুকে উদ্ধার করতে পারলেও জান্নাত ও মনোয়ারকে খুঁজে পাননি রওশন আরা।

ডোমার ফায়ার সর্ভিসের ইনচার্জ ফরহাদ হোসেন বাংলানিউজকে জানান, নদীতে প্রচণ্ড স্রোত রয়েছে। নিখোঁজ দুই শিশুকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। বিকেলে উদ্ধার কাজে যোগ দেয় রংপুর ফায়ার সার্ভিসের আরও একটি ডুবুরি দল।  

ডোমার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজার রহমান বিষয়টি বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১৫ ঘণ্টা, জুলাই ০৩, ২০২০
এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa