bangla news

করোনা মোকাবিলায় ইউএনডিপির ইএএলজি প্রকল্পের উদ্বোধন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৬-০৫ ৮:১২:০৭ পিএম
ইউএনডিপি'র লোগো

ইউএনডিপি'র লোগো

ঢাকা: সুইস এজেন্সি ফর ডেভেলপমেন্ট অ্যান্ড কোঅপারেশন (এসডিসি) এবং ডেনমার্ক সরকারের সহযোগিতায় ইউনাইটেড নেশনস্ ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের (ইউএনডিপি) কার্যকর এবং জবাবদিহিমূলক স্থানীয় সরকার (ইএএলজি) প্রকল্পের কার্যক্রম পুনর্গঠিত করা হয়েছে। একইসঙ্গে একটি ভার্চুয়াল সভায় প্রকল্পভুক্ত ২৫১টি ইউনিয়ন এবং ১৮টি উপজেলায় কোভিড-১৯ রেসপন্স কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়।

শুক্রবার (৫ জুন) গণমাধ্যমে পাঠানো ইউএনডিপির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, স্থানীয় সরকার বিভাগ কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন ইএএলজি প্রকল্পটি স্থানীয় সরকারের সক্ষমতা জোরদার করতে ২০১৮ সাল থেকে খুলনা, চাঁদপুর, ফরিদপুর, পটুয়াখালী, রংপুর, রাজশাহী, নেত্রকোনা, সুনামগঞ্জ ও কক্সবাজার জেলার ১৮টি উপজেলায় কাজ করছে। কোভিড-১৯ মহামারি চলাকালীন সময় প্রকল্পটি তার বাজেটের অংশ হতে জনসচেতনতা বাড়াতে বিভিন্ন কর্মসূচী গ্রহণসহ জনসাধারণের আত্মবিশ্বাস বাড়াতে পিপিই, হ্যান্ড স্যানিটাইজার, মাস্ক, গ্লাভস, সাবান সরবরাহ এবং হ্যান্ড ওয়াশিং সুবিধা স্থাপন করে প্রায় পাঁচ লক্ষ মানুষকে উপকৃত করবে।

কার্যক্রমের অনলাইন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলাল উদ্দিন আহমেদ। আরো উপস্থিত ছিলেন ড্যানিডার সিনিয়র উপদেষ্টা মন্টারিন মাহল আমিনুজ্জামান এবং এসডিসি‘র পরিচালক সুজান মুয়েলার, ইউএনডিপি বাংলাদেশের আবাসিক প্রতিনিধি সুদীপ্ত মুখার্জি।

হেলাল উদ্দিন আহমেদ বলেন, এগুলি অপ্রত্যাশিত সময়, তবুও অভাবীদের সাহায্য করার জন্য এরচেয়ে ভালো সময় আর কখনও হয়নি। অর্থনীতি ধীরে ধীরে পুনরায় খুলে দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে স্বাস্থ্যের দিকনির্দেশনা বজায় রাখা এবং সতর্ক থাকা গুরুত্বপূর্ণ। ইএএলজি-র কোভিড-১৯ মোকাবিলায় গৃহীত উদ্যোগগুলি এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা হ্রাস করবে।

অন্যান্য বক্তারা ইউনিয়ন পর্যায়ে জনসচেতনতা বাড়াতে, ব্যক্তিগত সুরক্ষা নিশ্চিতকরণের গুরুত্ব তুলে ধরে বলেন, মহামারি চলাকালীন সময়ের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নেওয়া এবং আমাদের সুবিধাভোগীদের চাহিদা পূরণ করা প্রয়োজন। বিশেষত আমরা কাউকে পেছনে না রাখতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এটি করার সময় স্বচ্ছতা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

ইউএনডিপি বাংলাদেশের আবাসিক প্রতিনিধি সুদীপ্ত মুখার্জি বলেন, এটি যেমন একটি সঙ্কট তেমনি একটি সুযোগ। নতুন সুযোগ কাজে লাগিয়ে উন্নয়নের জন্য পরিবর্তনের একটি সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে, আমি প্রথম সারির কর্মীদের, যারা ইউনিয়ন পর্যায়ে জনগণের জীবন রক্ষায় কাজ করে যাচ্ছে, তাদের কৃতজ্ঞতা জানাই।

অনলাইন অধিবেশনটি পরিচালনা করেন ইএএলজি প্রকল্পের জাতীয় প্রকল্প পরিচালক অমিতাভ সরকার। এসময় অন্যান্যের মধ্যে ইউএনডিপির অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০১১ ঘণ্টা, জুন ০৫, ২০২০
এইচএমএস/

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-06-05 20:12:07