bangla news

বাণিজ্যমন্ত্রীর ২ কোটি টাকার সহায়তা পেল ৩৪ হাজার পরিবার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৫-২৩ ৩:৫৫:৩৫ পিএম
বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি

ঢাকা: করোনায় কর্মহীন ও অসহায় রংপুরের পীরগাছা-কাউনিয়া উপজেলায় পর্যায়ক্রমে ৩৪ হাজার পরিবারের মাঝে ২ কোটি টাকার খাদ্যসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য সহায়তা দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। সরকারি বরাদ্দ চাল ছাড়াও টিপু মুনশি নিজস্ব অর্থায়নে চাল, আটা, আলু, ডাল, তেল, লবন, সাবান রয়েছে।

শনিবার (২৩ মে) বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, পীরগাছা-কাউনিয়া দু’টি উপজেলার কর্মহীন, অভাবগ্রস্ত, দুস্থ, অসহায়, ও হতদরিদ্র মানুষ বাণিজ্য মন্ত্রীর খাদ্য সহায়তা পাচ্ছেন। রংপুরের বিভিন্ন সংগঠন ও সংস্থায় এবং হতদরিদ্রদের কাছে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ করা হয়। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রীর নগদ আর্থিক সুবিধার আওতায় এসেছেন দুই উপজেলার দরিদ্র মানুষেরা। সুবিধাভোগীদের মধ্যে রয়েছে- কৃষি শ্রমিক, দিনমজুর, রিকশাচালক, ভ্যানচালক, নির্মাণ শ্রমিক, দোকানের কর্মচারী, ব্যক্তি উদ্যোগে পরিচালিত বিভিন্ন ব্যবসায় কর্মরত শ্রমিক, পোল্ট্রি খামারের শ্রমিক, হস্তশিল্পের, বাস-ট্রাকসহ পরিবহন শ্রমিকসহ নানা পেশার মানুষ। 

এছাড়া ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ১০ হাজার পরিবারের মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।

ইতোমধ্যে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি’র ব্যক্তিগত অর্থায়নে ৩৪ হাজার পরিবারের মধ্যে ৬১ লাখ ২০ হাজার টাকা মূল্যের ১ লাখ ৭০ হাজার কেজি চাল, ১৭ লাখ টাকা মূল্যের ৬৮ হাজার কেজি আটা, ২০ লাখ ৪০ হাজার টাকা মূল্যের ১ লাখ ০২ হাজার কেজি আলু, ২৮ লাখ ৯০ হাজার টাকা মূল্যের ৩৪ হাজার লিটার তেল, ৩ লাখ ৩৬ হাজার টাকা মূল্যের ৬ হাজার কেজি চিনি, ২ লাখ ৭০ হাজার টাকা মূল্যের ৬ হাজার কেজি সেমাই, ৫৪ লাখ ৪০ হাজার টাকা মুল্যের ৬৮ হাজার কেজি ডাল, ৪ লাখ ৪২ হাজার টাকা মূল্যের ১৭ হাজার কেজি লবন, ৩ লাখ ৪০ হাজার টাকা মূল্যের ৩৪ হাজার পিস সাবান বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে।

এলাকার সুবিধাভোগী মানুষ জানান, আমরা বীরমুক্তিযোদ্ধা টিপু মুনশির’র মতো জনদরদি মানুষ পেয়ে নিজেদের খুবই ভাগ্যবান মনে করছি। যেকোন বিপদ-আপদে আমরা টিপু মুনশিকে পাশে পাই। আমরা তার প্রতি কৃতজ্ঞ। তিনি আমাদের অভিভাবক। সরকারি ত্রাণের চাল ছাড়াও টিপু মুনশি নিজস্ব অর্থায়নে অসহায় পরিবারকে খাদ্য সহায়তা অব্যাহত রয়েছে। সাহায্য সহযোগিতা যেভাবে চলমান রয়েছে তাতে করে এ এলাকার মানুষের খাদ্য ও মানবিক সমস্যা হবে না।

এছাড়া প্রধানমন্ত্রীর নগদ আর্থিক সুবিধা প্রদানের ক্ষেত্রে বিশেষ নজরদারি অব্যাহত রেখে নিখুঁতভাবে যাচাই বাছাই করে নামের তালিকা চূড়ান্ত করা হয়েছে। প্রকৃত প্রাপকরা যেন তালিকা থেকে বাদ না পড়েন সেদিকে বিশেষ নজর রাখা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫৫ ঘণ্টা, মে ২৩, ২০২০
জিসিজি/এমকেআর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-05-23 15:55:35