bangla news

মাগুরায় কঠোর অবস্থানে সেনাবাহিনী

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৪-০২ ৭:৪৩:০৭ পিএম
মানুষকে ঘরে ফেরাতে কঠোর অবস্থানে সেনাবাহিনী। ছবি: বাংলানিউজ

মানুষকে ঘরে ফেরাতে কঠোর অবস্থানে সেনাবাহিনী। ছবি: বাংলানিউজ

মাগুরা: করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমণরোধে মাগুরায় মাঠ পযায়ে কঠোর হয়েছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী। সরকারি নির্দেশ সামাজিক দূরত্ব বাজায় রাখাসহ প্রয়োজন ছাড়া বাড়ির বাইরে যেতে নিষেধসহ হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন সেনা সসদ্যরা।

করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) এর প্রার্দুভাব মোকাবিলায় সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছে সরকার। একই সঙ্গে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘরে থেকে বের না হতে এবং জরুরি প্রয়োজনে নিদির্ষ্ট দোকানপাট ছাড়া সব ধরনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার নিদের্শনা দেওয়া হয়েছে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

তবে মাগুরায় প্রথম কয়েকদিন সরকারি নিদের্শনা মানা হলেও বর্তমান চিত্র ভিন্ন। আর এ কারণে মাঠে আরও কঠোর অবস্থানে সেনাবাহিনী। তারা মানুষকে যেকোনো মূল্যে ঘরে রাখার কর্মসূচি নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (০২ এপ্রিল) এমনই চিত্র দেখা গেছে মাগুরায়। জেলা শহরটির ভায়না মোড়, ঢাকা রোড, থানার সামনে, চৌরাঙ্গী মোড়, নতুন বাজার জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার (ভূমি) পাপিয়া আক্তারসহ অভিযান পরিচালনা করেছে সেনাবাহিনী। এসময় তারা পথচারীদের ঘরে ফেরার জন্য অনুরোধসহ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোকে বন্ধ করে রাখার আহ্বান করেছে। একইসঙ্গে আইন অমান্য করে দোকান খোলা রাখায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে দোকান মালিককে জরিমানাও করেছেন।

সেনাবাহিনীর কার্যক্রম প্রসঙ্গে ৫৫ পদাতি ডিভিশনের কর্নেল অতিফ বাংলানিউজকে বলেন, শুরু থেকেই মাগুরায় যেকোনো মূল্যে মানুষকে ঘরে ফেরাতে কাজ করছে সেনাবাহিনীর পেট্রোল টিম। আমরা প্রথমে মানুষকে অনুরোধ করবো। তবে অনুরোধ না শুনলে কঠোরতা আরোপ করবো। এ দায়িত্ব পালনের সময় আমাদের সঙ্গে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও পুলিশ সদস্যরা থাকবে। সাধারণ জনগণ আইন অমান্য করলে প্রয়োজনে জেল-জরিমানাও করা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪০ ঘণ্টা, এপ্রিল ০২, ২০২০
এসআরএস 

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   মাগুরা করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-04-02 19:43:07