bangla news

আরও ৭০ হাজার পরিবারকে খাদ্যসামগ্রী দিলেন নিজাম হাজারী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৪-০২ ৩:৫০:২৯ পিএম
বরাদ্ধ খাদ্যসামগ্রী, ইনসেটে নিজাম উদ্দিন হাজারী।

বরাদ্ধ খাদ্যসামগ্রী, ইনসেটে নিজাম উদ্দিন হাজারী।

ফেনী: করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের সংকটকালে ফেনীর পাঁচটি উপজেলার আরও ৭০ হাজার পরিবারের জন্য খাদ্য সহায়তা দিলেন ফেনী-২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম হাজারী। এর আগে ফেনী সদর এলাকার আরও ৫০ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দিয়েছিলেন তিনি।

বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) সকালে ফেনী সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সদর ব্যতীত ফেনীর পাঁচটি উপজেলায় জনপ্রতিনিধিদের কাছে ৭০ হাজার নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য বরাদ্দ ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম উদ্ধোধন করেন।

এসময় নিজাম উদ্দিন হাজারী গণমাধ্যমকে বলেন  ‘আমার যা কিছু আছে, ফেনীবাসীর কল্যাণে ব্যয় করতে চাই। আমি চাই ফেনীর গরীব দুঃখী মানুষ যাতে অভুক্ত না থাকে। করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব যতদিন থাকবে, ততদিন আমি আমার সাধ্য মতো চেষ্টা করবো তাদের পাশে দাঁড়াতে।’

তিনি বলেন, ‘সুষ্ঠুভাবে ত্রাণ বিতরণে আমাদের প্রতিটি ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধি ও আওয়ামী লীগের শীর্ষ থেকে তৃণমূল পর্যায়ের নেতারা অত্যন্ত আন্তরিক। তারপরও কেউ যদি ত্রাণ নিয়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে আমরা দল থেকে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবো। আইনগত ব্যবস্থাও নেবো।’

প্রত্যেক জনপ্রতিনিধি এবং আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ত্রাণ বন্টনের নির্দেশনা দিয়েছেন বলেও জানান তিনি।

সাংবাদিককের অপর প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা মোতাবেক সব জনপ্রতিনিধি এগিয়ে আসবে। আমি হয়তো আগে এসেছি। পর্যায়ক্রমে তারাও এগিয়ে আসবে। এগিয়ে আসা উচিত।’

চলমান করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে ফেনী সদরে কর্মহীন শ্রমজীবী ও নিম্ন আয়ের ৫০ হাজার মানুষকে সহায়তা করেছেন নিজাম উদ্দিন হাজারী। গত তিন দিনে ফেনী সদরের ১২ ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে ও ফেনী পৌরসভার ১৮টি ওয়ার্ডে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে দিনমজুর ও হতদরিদ্রদের নিত্য প্রযোজনীয় খাদ্য সামগ্রী দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫০ ঘণ্টা, এপ্রিল ০২, ২০২০
এসএইচডি/এফএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ফেনী
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-04-02 15:50:29