bangla news

কমলনগরে বাড়ি গিয়ে ত্রাণ দিচ্ছেন চেয়ারম্যান-ইউএনও

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৪-০১ ২:০১:১৭ এএম
ত্রাণ দিচ্ছেন চেয়ারম্যান-ইউএনও। ছবি: বাংলানিউজ

ত্রাণ দিচ্ছেন চেয়ারম্যান-ইউএনও। ছবি: বাংলানিউজ

লক্ষ্মীপুরে: লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে ত্রাণ সামগ্রী দেওয়ার খবর শুনলেই অসহায় মানুষের ভিড় জমে, নামে ঢল। এমন পরিস্থিতিতে করোনা সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কা থাকে। যে কারণে এবার কমলনগর উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ বাপ্পি, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ মোবারক হোসেন ও ভাইস চেয়ারম্যান ওমর ফারুক সাগর বাড়ি বাড়ি গিয়ে অসহায়দের সরকারি সহায়তা পৌঁছে দিচ্ছেন।

মঙ্গলবার ( ৩১ মার্চ) সন্ধ্যা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে গ্রামে গিয়ে বস্তা ভরে চাল, ডাল, আলু, পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেন তারা।

কমলনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ মোবারক হোসেন বলেন, করোনা ভাইরাস থেকে মুক্ত থাকতে দিনমজুর অসহায়দের নিজ নিজ বাড়িতে থাকা নিশ্চিত করতে ত্রাণ সামগ্রী দিচ্ছে সরকার। যথাযথভাবে ওইসব খাদ্যসামগ্রী বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। একই সঙ্গে সচেতন করা হচ্ছে সাধারণ মানুষকে।

কমলনগর উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ বাপ্পি বলেন, সোমবার উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গনে ত্রাণ বিতরণের খবর পেয়ে অসহায় মানুষের ঢল নামে। পরে উপস্থিত সবারর মধ্যে মাস্ক বিতরণের পর সামাজিক দূরত্বের মধ্যে রেখে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। তবুও শঙ্কা থেকে যায়। যে কারণে সবাইকে করোনা মুক্ত রাখতে বাড়ি বাড়ি গিয়ে অসহায় মানুষের ঘরে ঘরে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার চেষ্টা করছি।

জানা যায়, কমলনগর মেঘনা নদীর ভাঙন কবলিত এলাকা। এখানকার বেশির ভাগ মানুষ কৃষক, জেলে ও দিনমজুর। এ উপজেলায় অসহায় মানুষের সংখ্যা বেশি। এই জনপদে বরাদ্দকৃত সহায়তা যথেষ্ট নয়। এখানে আরও বেশি সরকারি বরাদ্দের দাবি করছেন জনপ্রতিনিধিসহ সচেতন মহল।

বাংলাদেশ সময়: ০১৫৭ ঘণ্টা, এপ্রিল ০১, ২০২০
এসআর/আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   লক্ষ্মীপুর করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-04-01 02:01:17