bangla news

করোনা ইউনিটে নেয়ার পরেই রোগীর মৃত্যু

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৩-২৯ ৫:১২:০৭ এএম
.

.

বরিশাল: বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে নেয়ার সাথে সাথে এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার (২৮ মার্চ) দিবাগত রাত ১২টার দিকে ওই রোগীর মৃত্যু হয়। 

মৃত নিরু বেগম (৪৫) বরিশাল কাউনিয়া পুড়ানপাড়া এলাকার মো. দুলালের স্ত্রী। 

হাসপাতালের পরিচালক ডা. মো. বাকির হোসেন জানান, মৃত্যুর কিছু সময় আগে ওই রোগীকে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরী বিভাগে নিয়ে আসেন তার স্বজনরা।

সেখানে রোগীর স্বজনদের কাছ থেকে উপসর্গ শুনে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে করোনা ইউনিটে প্রেরণ করেন। যেখানে পৌঁছানোর সাথে সাথে কর্তব্যরত চিকিৎসক ওই রোগীকে মৃত ঘোষনা করেন। 

পরিচালক মৃতের স্বজনদের বরাত দিয়ে জানান, এই রোগী ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়ে ৩দিন আগে বরিশাল জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। সেখানে চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে বাড়িও ফিরে যান। এরপর বাড়িতে বসে তিনি গলাব্যাথা ও শ্বাসকস্টে আক্রান্ত হন। অবস্থার অবনতি হলে তাকে শনিবার দিবাগত রাতে শেবাচিম হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। এছাড়া তার ডায়বেটিস এবং উচ্চ রক্তচাপ ছিল বলে মুঠোফোনে জানান মৃতের স্বজনরা।

তবে মৃত ওই নারীর কোনো স্বজন বিদেশ থেকে আসেননি কিংবা তিনিও বরিশালের বাইরে কোথাও যাননি বলে স্বজনদের উদ্বৃতি দিয়ে জানিয়েছেন হাসপাতালের পরিচালক।

এদিকে মৃত্যুর পরপরই স্বজনরা তার মরদেহ নিয়ে গেছেন বলে জানা গেছে।

শনিবার দিবাগত রাত পর্যন্ত শের-ই-বাংলা মেডিকেলের করোনা ইউনিটে করোনা সন্দেহে ৬ জন রোগী চিকিৎসাধীন আছেন। যদিও এদের মধ্যে কেউ করোনায় আক্রান্ত কিনা তা এখনো নিশ্চিত হতে পারেননি কর্তৃপক্ষ।  পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে পেলে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।

বাংলাদেশ সময়: ০৫১২ ঘন্টা, মার্চ ২৯, ২০২০
এমএস/এমএইচএম

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-03-29 05:12:07