bangla news

মান্দায় ট্রাকচাপায় ওষুধ কোম্পানির ৩ বিক্রয় প্রতিনিধি নিহত

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০২-২৪ ১০:২৭:২৯ এএম
মান্দায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতরা

মান্দায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতরা

নওগাঁ: নওগাঁর মান্দায় উপজেলার ফেরিঘাট এলাকায় ট্রাকচাপায় সিএনজিচালিত অটোরিকশার তিন যাত্রী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন অটোরিকশা চালক ও আরও এক যাত্রী। চালক ছাড়া হতাহতরা সবাই ওষুধ কোম্পানি একমি ফার্মাসিউটিক্যাল লিমিটেডের বিক্রয় প্রতিনিধি বলে জানা গেছে।

সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) সকালে নওগাঁ-রাজশাহী মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলেন- মান্দা উপজেলার বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের চককামদের গ্রামের শামসুল আলমের ছেলে রফিকুল ইসলাম (৩৮) ও সদর ইউনিয়নের ঘাটকৈর গ্রামের সোলাইমান আলীর ছেলে জয়নাল আবেদীন (৩৫) এবং লালমনিরহাট জেলার আফতাব উদ্দিনের ছেলে আশরাফুল ইসলাম (২৯)। 

আহতরা হলেন- সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা উপজেলার হামকুড়িয়া গ্রামের আব্দুস সোবহানের ছেলে ও ওই কোম্পানির প্রতিনিধি আবুল হাসেন (৩৮) এবং রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার দামকুড়াহাট এলাকার মৃত খয়বর আলীর ছেলে অটোরিকশা চালক আব্দুল কুদ্দুস (৩৮)।

পুলিশ জানায়, হতাহতরা একমি কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধি হিসেবে মান্দা ও নিয়ামতপুর উপজেলায় কর্মরত ছিলেন। সোমবার সকালে নওগাঁ শহরে মাসিক সভায় যোগ দিতে তারা মান্দা ফেরিঘাট এলাকা থেকে একটি অটোরিকশায় করে রওনা দেন। পথে অটোরিকশাটি একই এলাকার একটি ব্রিজ পার হওয়া মাত্রই বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাক চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়।

মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাফফর হোসেন বাংলানিউজকে জানান, দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলেই রফিকুলের মৃত্যু হয় এবং গুরুতর আহত হন অটোরিকশা চালকসহ আরও তিনজন। আহতদের উদ্ধার করে মান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে জয়নালের মৃত্যু হয় এবং আশঙ্কাজনক অবস্থায় রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান আশরাফুল। রামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন অটোরিকশা চালক আব্দুল।

বাংলাদেশ সময়: ১০২৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২০/ আপডেটেড: ১২৪০ ঘণ্টা
এসআরএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   নওগাঁ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-02-24 10:27:29