bangla news

'লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম' দেখলেন প্রধানমন্ত্রী-রেহানা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০২-২২ ৬:৫০:৫৭ এএম
'লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম' দেখছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বোন শেখ রেহানা, কন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুলসহ অন্যরা

'লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম' দেখছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বোন শেখ রেহানা, কন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুলসহ অন্যরা

ঢাকা: রাজধানীতে শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় চিত্রশালায় ‘লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান’ শিরোনামে আয়োজিত প্রদর্শনী ঘুরে দেখলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার বোন শেখ রেহানা। 

শুক্রবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইন্সটিটিউটে নিজের বক্তব্য শেষে প্রদর্শনী ঘুরে দেখার সময় তাদের সঙ্গে আরো উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী কন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুল।

প্রদর্শনীতে এসে বিভিন্ন চিত্রকর্ম ও আলোকচিত্র দেখার পাশাপাশি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবির সামনে দাঁড়িয়ে সেলফি তোলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বোন শেখ রেহানা এবং মেয়ে সায়মা ওয়াজেদ। এসময় চিত্রকর্মগুলো নিয়ে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। 

পাকিস্তানের শাসকগোষ্ঠী রবীন্দ্র সঙ্গীত নিষিদ্ধ করার পর তৎকালীন পত্রিকায় প্রকাশিত একটি সংবাদ প্রদর্শনী দেখে সরাসরি আন্দোলনে অংশ নেওয়ার স্মৃতিচারণ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি জানান, তাদের আন্দোলনে অংশ নেওয়ার ছবি পত্রিকায় প্রকাশিত হলে কয়েকদিন বাসা থেকে বের হতে দিতেন না মা বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিব।

...এসময় প্রদর্শনীতে দেখানো জাতির পিতার ৭ মার্চের ভাষণ শুনে আবেগে আপ্লুত হয়ে যান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দুই কন্যা। একে অপরকে জড়িয়ে ধরে সম্পূর্ণ ভাষণ শোনেন। সবশেষে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমিতে আয়োজিত অন্য শিল্পকর্ম ঘুরে দেখেন তারা।

মুজিববর্ষ উপলক্ষে আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত শিল্পকলা একাডেমিতে সবার জন্য উন্মুক্ত থাকছে ‘লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান’ প্রদর্শনীর কার্যক্রম।

আরও পড়ুন>>>বাবার প্রতিকৃতির সামনে প্রধানমন্ত্রীর সেলফি

৭-১৫ ফেব্রুয়ারি সিসমিক মুভমেন্ট নিয়ে শিল্পকলা একাডেমিতে আয়োজন করা হয় ঢাকা আর্ট সামিট। মুজিববর্ষের অংশ হিসেবে এই আয়োজনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে রাখা হয় বিশেষ প্রদর্শনী ‘লাইটিং দ্য ফায়ার অব ফ্রিডম বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান’। 

ঢাকা আর্ট সামিট শেষ হয়ে গেলেও বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে আয়োজিত এই প্রদর্শনী সাধারণ দর্শকদের জন্য উন্মুক্ত থাকবে ৩১ মার্চ পর্যন্ত। 

আয়োজিত এই প্রদর্শনীতে তথ্যগত সহয়তা দিচ্ছে সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই)।

বাংলাদেশ সময়: ০৬৪৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০২০
এমইউএম/এমআইএইচ/এএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2020-02-22 06:50:57