bangla news

মেহেরপুরে এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে জখম, বাবা-ছেলে আটক

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-২৮ ১:৪৫:৪৭ পিএম
আটক-প্রতীকী ছবি

আটক-প্রতীকী ছবি

মেহেরপুর: মেহেরপুরে পারিবারিক কলহের জেরে বিয়াইকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। এ ঘটনায় আনিছুর রহমান ও তার ছেলে ফয়জদ্দীন আহমেদ ওরফে সোহেল নামে দুইজনকে আটক করেছে সদর থানা পুলিশ।

আহত হাবিবুর রহমান ওরফে পচাকে (৫০) ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতাল।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ দারা খান বাংলানিউজকে জানান, সদর থানার আমঝুপি উত্তরপাড়া এলাকার হাবিবুর রহনের মেয়ের সঙ্গে একই গ্রামের আনিছুর রহমানের ছেলের বিয়ে হয়। বিয়ের পর তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে অমিল দেখা দেয়। এতে দুই পরিবারের মধ্যে কলহের সৃষ্টি হয়। দীর্ঘদিন ধরে তাদের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলে আসায় সোমবার দিবাগত রাত আনুমানিক দেড়টার দিকে হাবিবুর রহমানকে ঘুমন্ত অবস্থায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতাল ও পরে কুষ্টিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান অবস্থার আরও অবনতি হলে তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে কোপানোর আঘাত রয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।

এ ঘটনায় আনিছুর রহমানকে সন্দেহ হলে হাবিবুর রহমানের পরিবারের সদস্যরা পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন। পুলিশ রাতেই অভিযান চালিয়ে নিজ বাড়ি থেকে আনিছুর রহমান ও তার ছেলে ফয়জুদ্দীন আহমেদ ওরফে সোহেলকে আটক করেছে।

মেহেরপুর সদর থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আব্দুল আলিম জানান, আহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সন্দেহভাজন দুজনকে আটক করা হয়েছে।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৩৪২ ঘণ্টা, জানুয়ারি, ২০২০
আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   মেহেরপুর
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2020-01-28 13:45:47