ঢাকা, রবিবার, ১৭ শ্রাবণ ১৪২৮, ০১ আগস্ট ২০২১, ২১ জিলহজ ১৪৪২

জাতীয়

পরীবাগে দুই সাংবাদিককে মারধর, হুমকি পুলিশের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৬০৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২১, ২০২০
পরীবাগে দুই সাংবাদিককে মারধর, হুমকি পুলিশের

ঢাকা: এবার রাজধানীর পরীবাগে পুলিশ সদস্যের মারধরের শিকার হয়েছেন অপরাধ বিষয়ক সাংবাদিক শেখ জাহাঙ্গীর আলম ও সাজ্জাদ মাহমুদ খান। ইচ্ছাকৃত মোটরসাইকেল চাপা দেওয়ার ঘটনার প্রতিবাদ করায় দুই সাংবাদিককে মারধর এমনকি মেরে ফেলার হুমকি দেন এক পুলিশ সদস্য।

সোমবার (২০ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় পরীবাগের এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (ক্র্যাব)।

ক্র্যাবের দফতর সম্পাদক শহিদুল ইসলাম রাজী স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে জানানো হয়, ক্র্যাব সদস্য বাংলা ট্রিবিউনের শেখ জাহাঙ্গীর আলম ও আলোকিত বাংলাদেশের সাজ্জাদ মাহমুদ খানকে পুলিশ সদস্যের মোটরসাইকেল চাপা, অসৌজন্যমূলক আচরণ এবং মেরে ফেলার হুমকির ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ক্র্যাব কার্যনির্বাহী কমিটি।

অবিলম্বে জড়িত ওই পুলিশ সদস্যকে শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েছেন নেতারা।

ঘটনার বর্ণনায় জানানো হয়, ডিএমপি মিডিয়া সেন্টার থেকে মোটরসাইকেলে পান্থপথে নিজ কর্মস্থলে যাচ্ছিলেন শেখ জাহাঙ্গীর। তার সঙ্গে ছিলেন সাজ্জাদ মাহমুদ। এ সময় পরিবাগের রাস্তার বিপরীত দিক থেকে আসা পুলিশের একটি মোটরসাইকেল তাদের মোটরসাইকেলে ধাক্কা দেয়। এরপর আবারও ইচ্ছাকৃতভাবে জাহাঙ্গীরের পায়ে চাপা দেয়। এ ঘটনার প্রতিবাদ করলে জাহাঙ্গীরকে লাথি মারেন এবং অকথ্য ভাষায় তাদের দুইজনকে গালিগালাজ করেন ওই পুলিশ সদস্য। এমনকি মোটরসাইকেল চাপা দিয়ে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে দ্রুত পালিয়ে যান পুলিশের পোশাক পরিহিত ওই ব্যক্তি। তার মোটরসাইকেলের রেজিস্ট্রেশন নম্বর- (ঢাকা মেট্রো হ-১২-৭৫০৫)।

ক্র্যাব সভাপতি আবুল খায়ের ও সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান বিকু বিবৃতিতে ঘটনার নিন্দা জানিয়ে বলেন, পুলিশ প্রজাতন্ত্রের কর্মচারী, জনগণের সেবক। সাধারণ মানুষের সঙ্গে পুলিশের প্রত্যেক সদস্যের মানবিক ও পেশাদার আচরণ করা উচিত। দুইজন পেশাদার সাংবাদিককে রাস্তায় এভাবে হেনস্তা, অসৌজন্যমূলক আচরণ এবং মেরে ফেলার হুমকির ঘটনা অত্যন্ত নিন্দনীয়। বিষয়টি উদ্বেগের, যা আমাদের কাম্য নয়।

ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দোষী পুলিশ সদস্যকে চিহ্নিত করে আইনানুগ ব্যবস্থাগ্রহণ করতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান নেতারা। দ্রুত সময়ের মধ্যে ব্যবস্থা নেওয়া না হলে কঠোর আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তারা।

বাংলাদেশ সময়: ০০৫৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২১, ২০২০
পিএম/এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa