ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫ আষাঢ় ১৪২৭, ০৯ জুলাই ২০২০, ১৭ জিলকদ ১৪৪১

জাতীয়

বিএসএফের ধাওয়ায় বাংলাদেশির মৃত্যু

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-১৬-০১ ১২:২১:২৬ এএম
বিএসএফের ধাওয়ায় বাংলাদেশির মৃত্যু

কুড়িগ্রাম: কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার দাঁতভাঙ্গা সীমান্তে ভারত থেকে গরু আনার সময় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্সের (বিএসএফ) ধাওয়ায় নদীতে লাফ দিয়ে খায়বর আলী (৪২) নামের এক বাংলাদেশি গরু চোরাকারবারির মৃত্যু হয়েছে।

বুধবার (১৫ জানুয়ারি) বিকেল ৫টার দিকে জিঞ্জিরাম নদী থেকে গরু চোরাকারবারির মরদেহ উদ্ধার করে রৌমারী থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

বিজিবি ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, রৌমারী উপজেলার দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের দাঁতভাঙ্গা সীমান্তের ১০৫৭ আর্ন্তজাতিক পিলারের কাছে বুধবার ভোরে গরু আনতে যায় ১০-১২ জন বাংলাদেশি গরু চোরাকারবারি।

এসময় সীমান্তের কাছে বিজিবির টহলদল দেখে তারা আত্মগোপন করতে গিয়ে খায়বর আলী ভুল করে ভারতের সীমানায় ঢুকে পড়েন।  

এসময় ভারতের কুকুরমরার বিএসএফ ক্যাম্পের সদস্যরা খায়বর আলীকে ধাওয়া দিলে জীবন বাঁচাতে ব্রীজের উপর থেকে জিঞ্জিরাম নদীতে লাফ দেয়। ঘটনার সময় থেকে নিখোঁজ থাকার পর দুপুর আড়াইটার দিকে জিঞ্জিরাম নদী থেকে খায়বার আলীর মরদেহ উদ্ধার করে বিজিবি। নিহত খায়বর দাঁতভাঙ্গা ইউনিয়নের হরিণধরা গ্রামের বাসিন্দা।

রৌমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাসান ইনাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে বলেন, ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরির পর থানায় নেওয়া হয়েছে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ বৃহস্পতিবার (১৬ জানুয়ারি) কুড়িগ্রাম মর্গে পাঠানো হবে।

জামালপুরের ৩৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের পরিচালক লে. কর্নেল এসএম আজাদ বিষয়টি নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে বলেন, খায়বার আলীর মরদেহ জিঞ্জিরাম নদী থেকে উদ্ধারের পর কুড়িগ্রামের রৌমারী থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৫, ২০২০
এফইএস/এবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa