ঢাকা, সোমবার, ৬ আশ্বিন ১৪২৭, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২ সফর ১৪৪২

জাতীয়

মহম্মদপুরে ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০২৪৯ ঘণ্টা, জানুয়ারী ১৩, ২০২০
মহম্মদপুরে ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় 

মাগুরা: মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলায় শত বছরের ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

উপজেলার বালিদিয়া ইউনিয়নের বড়রিয়া গ্রামে রোববার (১২ জানুয়ারি) বিকেলে পৌষের হিমেল বাতাস উপেক্ষা করে দূরদূরান্ত থেকে ছুটে এসেছে ঐতিহ্যবাহী মেলায়।

প্রতি বছর বাংলা পৌষ মাসের ২৮ তারিখে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের সর্ববৃহৎ এ মেলা ও ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা হয়ে থাকে বড়রিয়া গ্রামে।

 

খুলনা বিভাগের সর্ববৃহৎ এ মেলাকে ঘিরে উৎসবে মেতে ওঠে এলাকার প্রায় ৫০টি গ্রাম ও আশপাশের জেলা থেকে আশা অসংখ্য মানুষ। মেলায় মাছ-মাংস, মিষ্টি, আসবাবপত্র, বাঁশ, বেত ও মৃৎশিল্পীদের তৈরি নানা রকম খেলনা এবং প্রসাধন সামগ্রীর স্টল বসেছে প্রায় তিন বর্গ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে।  

শত বছরের ঐতিহ্যবাহী এ মেলার মূল আকর্ষণ ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা, নাগরদোলা, পুতুল নাচ, যাদু ও কৌতুক শিল্পীদের পরিবেশনা। তবে এর মধ্যে ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা উপভোগ করতে দূরদূরান্ত থেকে ছুটে আসে অনেকে।

যশোর থেকে মেলা দেখতে আশা সুমায়া খাতুন বাংলানিউজকে বলেন, পৌষ মাসের এই সময় মাগুরা জেলায় এ মেলা হয়ে থাকে। এখানে বিভিন্ন গ্রাম থেকে মানুষ আসে। তারা খুব আনন্দ উপায়। আমিও এসেছি মেলায় খুব ভাল লাগছে।

এবার প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছে দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে আসা ২৭টি ঘোড়া। দুপুর ২টায় ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা হয়।

মেলা কমিটির সভাপতি শাহাজান শিকদার বাংলানিউজকে বলেন, শত বছরের এ মেলা মহম্মদপুর উপজেলার একটি ঐতিহ্য। এ মেলা ঘিরে এলাকায় চলে উৎসবের আমেজ। প্রথম দিন ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা হয়। আগামীকাল হবে জামাই মেলা।

তিনি আরও বলেন, ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতায় খুলনা, ফরিদপুর, যশোর, ঝিনাইদহ থেকে ঘোড়া এসেছে। প্রতিযোগিতায় প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারীকে নগদ অর্থ দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০২০
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa