bangla news

ধনবাড়ীতে চার বছরের শিশুকে ধর্ষণ, কিশোর আটক

উপজেলা করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-১১ ১০:৩০:০২ এএম
প্রতীকী

প্রতীকী

মধুপুর (টাঙ্গাইল): টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী উপজেলায় চার বছরের এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এ ঘটনায় মোমিন (১৪) নামে এক কিশোরকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন এলাকাবাসী।

মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) বিকেল ৫ টার দিকে ধনবাড়ীর কেন্দুয়া বাজারের একটি দোকানের পেছনের ঘরে এ ঘটনা ঘটেছে।

মোমিন কেন্দুয়া বাজারের পাশের সুজলকর গ্রামের ডেকোরেশন ব্যবসায়ী ওয়াজেদ আলীর ছেলে।

ধর্ষিতা শিশুটির মা ও খালাসহ স্থানীয়রা বাংলানিউজকে জানান, বিকেলে বাড়ির গেট এলাকায় থাকা শিশুটিকে বাবার ডেকোরেশনের দোকানে অবস্থান করা মোমিন ইশারায় কাছে ডাকে। ডেকে নিয়ে দোকানের সওদা কিনে দেওয়ার নাম করে পেছনের ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে। বাড়ি ফিরে শিশুটি তার মায়ের কাছে ব্যথার কথা, প্রসাব না করতে পারার কথা বলে। মোমিন তাকে এমন (ধর্ষণ) করেছে বলতে থাকে। এ অবস্থায় বাড়ির লোকজন মোমিনকে ধরে এনে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে রাতে ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ মোমিনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

এছাড়া পুলিশ হেফাজতে শিশুটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

ধনবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) চানমিয়া বাংলানিউজকে জানান, মোমিন বয়সে কিশোর। স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র।

মধুপুর সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার কামরান হোসেন জানান, শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষা ও চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। এছাড়া মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

বাংলাদেশ সময়: ১০২৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১১, ২০১৯
ওএইচ/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-12-11 10:30:02