bangla news

একই পরিবারের ৩ জনের মরদেহ উদ্ধার, আটক আরও ১

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-০৮ ৬:০৮:৪৫ এএম
উদ্ধার করা মরদেহ, ছবি: বাংলানিউজ

উদ্ধার করা মরদেহ, ছবি: বাংলানিউজ

বরিশাল: বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার সলিয়াবাকপুরের একটি বাড়ি থেকে এক বৃদ্ধা, তার মেয়ের জামাইসহ তিনজনের মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় জুয়েল নামে আরও একজনকে আটক করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

জুয়েল একই ঘটনায় এর আগে আটক হওয়া জাকির হোসেনের (৪০) সহযোগী বলে জানিয়েছেন বানারীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শিশির কুমার পাল।

শনিবার (০৭ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত দেড়টার দিকে বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করে ওসি বলেন, এ ঘটনায় মামলা দায়েরের বিষয়টি এখনও প্রক্রিয়াধীন। তবে আটক দুইজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

থানা পুলিশ জানিয়েছে, আটক জাকির হোসেন ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার। তিনি পেশায় রাজমিস্ত্রি। তবে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করা তার মূল কাজ। আর তার সহযোগী জুয়েলের বাড়ি বাকেরগঞ্জ উপজেলায় বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।

আটক জুয়েলের কাছ থেকে কিছু স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোন ও ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

শনিবার সকালে সলিয়াবাকপুরের কুয়েত প্রবাসী আব্দুর রবের বাড়ি থেকে তার মা মরিয়ম বেগম (৭০), মেজ বোন মমতাজ বেগমের স্বামী অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক শফিকুল আলম (৬০) ও খালাতো ভাই মো. ইউসুফের (২২) মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মরদেহগুলো যে বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয়েছে, সেই ভবনটি নির্মাণের সময় জাকির রাজমিস্ত্রির কাজ করেছিলেন। পাশাপাশি তিনি ঝাড়-ফুঁকের কাজও করতেন।

স্থানীয় একাধিক সূত্র বলছে, এই প্রবাসীর পরিবারের কয়েক সদস্যের সঙ্গে ভণ্ড ফকির জাকিরের সখ্যতাও ছিল। তবে এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও কিছু জানানো হয়নি পুলিশের পক্ষ থেকে।

এদিকে, এ ঘটনায় নিহত মরিয়মের মেয়ের জামাই হারুন সিকদার বাদী হয়ে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিয়েছেন বলে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৬০৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৮, ২০১৯
এমএস/টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   বরিশাল মরদেহ উদ্ধার
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-12-08 06:08:45